পতেঙ্গা সৈকতকে আরো দৃষ্টিনন্দন করে গড়ব

0
122

গণসংযোগকালে ডা. শাহাদাত

মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ও চসিক মেয়র প্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন বলেছেন, চট্টগ্রাম বন্দর হচ্ছে দেশের অর্থনীতির মূল চালিকা শক্তি। এই বন্দর চট্টগ্রামে হলেও এর আশপাশের এলাকার যাদের ভূমি অধিগ্রহণ করে বন্দর গড়ে ওঠেছে ওইসব এলাকার মানুষ বন্দরে চাকরি পায় না। বর্তমানে চট্টগ্রাম বন্দরে প্রায় দুই হাজার পদ খালি রয়েছে। এতে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বন্দর এলাকার মানুষকে নিয়োগ দেওয়ার ব্যবস্থা নিতে হবে। পতেঙ্গা সমুদ্র সৈকত থেকে থাইল্যান্ডের পাতায়া বিচ আয়তনে অনেক ছোট। কিন্তু তারা সেখানে ফাইভ স্টার হোটেলসহ বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দিয়েছে। সে তুলনায় পতেঙ্গায় তেমন অবকাঠামো গড়ে ওঠেনি। আমি মেয়র নির্বাচিত হলে পতেঙ্গা সমুদ্র সৈকতকে পর্যটকদের জন্য আরো দৃষ্টিনন্দন ও আধুনিক সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি করে গড়ে তুলবো। আমাদের এই প্রিয় চট্টগ্রামকে একটি সুন্দর, স্বাস্থ্যসম্মত পর্যটননগরী, পরিচ্ছন্ন, আধুনিক বাণিজ্য নগরী হিসাবে প্রতিষ্ঠায় প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেব।
তিনি গতকাল শনিবার বিকালে ৪১ নম্বর দক্ষিণ পতেঙ্গা ওয়ার্ডে গণসংযোগকালে পথসভায় এ কথা বলেন। তিনি নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে লালদিয়ার চর, ১৫ নম্বর নিজাম মার্কেট, ফুলচড়ি পাড়া, নাজিরপাড়া, চড়িহালদা, মাইজপাড়া হয়ে চৌধুরী পাড়ায় পথসভায় বক্তব্য রাখেন।
এসময় মহানগর বিএনপির সদস্যসচিব আবুল হাশেম বক্কর বলেন, চট্টগ্রামবাসী বিএনপির দিকে আশা নিয়ে তাকিয়ে আছে। বিএনপি চসিক নির্বাচনে অংশ নিয়েছে বিজয়ী হওয়ার জন্য। চট্টগ্রামবাসীর ভোটাধিকার ও গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য। তিনি নেতা-কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানান।
দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবু সুফিয়ান বলেন, চসিক নির্বচনে সংগঠনের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের মধ্যে ঐক্যের কোনো বিকল্প নেই। সকল ভেদাভেদ ভুলে সাহস নিয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে ভোটকেন্দ্রে অবস্থান নিতে হবে। তবেই কাক্সিক্ষত বিজয় অর্জন সম্ভব হবে।
গণসংযোগের আগে তিনি হালিশহর বি ব্লক এলাকায় সাধারণ মানুষের মাঝে করোনার সুরক্ষা সামগ্রী ও মাস্ক বিতরণ করেন। পরে তিনি ২৬ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থী আবুল হাশেমের বাসভবনের সামনে মতবিনিময় সভায় মিলিত হন।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন মহানগর বিএনপির যুগ্ন আহ্বায়ক মোহাম্মদ মিয়া ভোলা, ইয়াছিন চৌধুরী লিটন, সাবেক সহসভাপতি জামাল আহমেদ, আহ্বায়ক কমিটির সদস্য কাউন্সিলর প্রার্থী আবুল হাসেম, গাজী মোহাম্মদ সিরাজ উল্লা, বিএনপি নেতা সাবেক কমিশনার মো. ইসমাইল, মাহমুদ আলম পান্না, মোশারফ হোসেন ডেপ্টি, কাউন্সিলর প্রার্থী ডা. নুরুল আবছার, মো. শাহাবউদ্দিন, জসিম উদ্দিন জিয়া, কাউন্সিলর প্রার্থী জেসমিনা খানম, কামাল পাশা নিজামী, বেলায়েত হোসেন বুলু, ইকবাল হোসেন, আবুল কালাম আজাদ সেলিম, আঁখি সুলতানা, জিয়াউর রহমান জিয়া প্রমুখ।