নাগরিক সুবিধা দিতে সবধরনের উন্নয়ন করা হবে

0
188

পেকুয়ায় রাস্তা পরিদর্শনে এমপি জাফর আলম

নিজস্ব প্রতিনিধি, চকরিয়া :

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষনা শহরের সুবিধা নিশ্চিত করা হবে গ্রামে। পরিকল্পিত ও টেকসই উন্নয়নে গ্রামের প্রতিটি সড়ক হবে পাকা। আগে যেসব সড়ক দিয়ে মানুষ হেঁটে যাতায়াত করতে দুর্ভোগ পোহাতো, আগামীতে সেইসব সড়কে চলাচল করবে সবধরনের গাড়ি। সরকারের প্রতিটি সেক্টর এখন গ্রামীণ জনপদের সড়ক উন্নয়নে টেকসই পদ্ধতি গ্রহন করেছেন। গত ২ নভেম্বর সকালে পেকুয়া উপজেলার সদর ইউনিয়নের ছিরাদিয়া এলাকার উন্নয়নবঞ্চিত একটি সড়ক পরিদর্শন শেষে কক্সবাজার-১ (চকরিয়া- পেকুয়া) আসনের সংসদ সদস্য ও চকরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম এসব কথা বলেন।এমপি জাফর আলম বলেন, বর্তমানে কক্সবাজারকে ঘিরে সরকার হাজার কোটি টাকার মেগাউন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করছেন। মহেশখালীর মাতারবাড়িতে তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন, দোহাজারী থেকে চকরিয়া হয়ে ঘুমধুম পর্যন্ত রেললাইন নির্মাণ, কক্সবাজার জেলার সঙ্গে স্থলপথে যোগাযোগ খাতের অন্যতম গুরুত্বপুর্ণ ৬ লেনের চকরিয়ার মাতামুহুরী সেতুর নির্মাণ কাজ এখন দৃশ্যমান। এগিয়ে চলছে ৫৮ কোটি টাকা বরাদ্দে বরইতলী ছিকলঘাট-মানিকপুর হয়ে ইয়াংছা সড়ক নির্মাণ কাজ। অপরদিকে পেকুয়া উপজেলার উপকুলীয় অঞ্চলে শতকোটি টাকা বরাদ্দে এগিয়ে চলছে টেকসই বেড়িবাঁধ ও সিসি ব্লক স্থাপনের মাধ্যমে প্রতিরক্ষামুলক উন্নয়ন কাজ। পাশাপাশি দুই উপজেলার ২৫টি ইউনিয়নে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) ও প্রকল্প বাস্তবায়ন অধিদপ্তর (পিআইও) বিভাগের মাধ্যমে চলমান রয়েছে অন্তত দুইশটি ছোট-বড় গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়ন কাজ। এমপি জাফর আলম বলেন, চলমান গ্রামীণ অবকাঠামোগত উন্নয়ন কাজসমুহ সমাপ্ত হলেই জননেত্রী শেখ হাসিনার ঘোষনা মোতাবেক আগামীতে চকরিয়া- পেকুয়ার প্রতিটি জনপদ দৃশ্যমান বদলে যাবে। যোগাযোগ খাতের অভাবনীয় পরিবর্তনে গ্রামের মানুষ পাবে শহরের সুবিধা। এসময় উপস্থিত ছিলেন পেকুয়া উপজেলা পরিষদের নারী ভাইস চেয়ারম্যান উন্মে কুলছুম মিনু, পেকুয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাসেম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও চকরিয়া প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক জহিরুল ইসলাম, পেকুয়া উপজেলা কৃষকলীগের আহবায়ক হাজি মেহের আলী, জিয়াবুল হক জিকু ছাড়াও স্থানীয় আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মী, এলাকাবাসী।