সময় কাটাতে ভাড়া নিতে পারবেন ‘কানু দ্বীপ’

0
144

সুপ্রভাত ডেস্ক :
করোনাভাইরাসের সংক্রমণ অনেকটাই বেড়ে গেছে। তাই ভিড়-ভাট্টা এড়িয়ে চলাই সবচেয়ে নিরাপদ কাজ। কেমন হয়, আস্ত একটা দ্বীপ ভাড়া নিয়ে সময় কাটালে? বিষয়টা আপনার কাছে হয়তো স্বপ্নের মতো মনে হতে পারে। তবে সত্যিই এমন দ্বীপ আছে, যা আপনি অবকাশ যাপনের জন্য ভাড়া নিতে পারেন।
ব্যতিক্রমী এ দ্বীপের নাম কানু। মধ্য আমেরিকার উত্তর-পূর্ব অংশে, ক্যারিবীয় সাগরের উপকূলে এর অবস্থান। বেলিজের প্লেসনিয়া উপকূল থেকে মাত্র ১৫ মিনিটের দূরে অবস্থিত কানু একটি অত্যাশ্চর্য প্রবাল দ্বীপ।
আধুনিক সুযোগ-সুবিধা নিয়েই ব্যক্তিগত সময় কাটানো যায় দ্বীপটিতে। সামর্থ্যবানরা চাইলে গোটা দ্বীপ ভাড়াও করতে পারেন পরিবার অথবা বন্ধুদের নিয়ে সময় কাটানোর জন্য।
প্রাকৃতিক ও দৃষ্টিনন্দন এ দ্বীপে একই সময়ে ২০ জন ব্যক্তি অবস্থান করতে পারবেন। এর মধ্যে ১০ জন প্রাপ্তবয়স্ক ও ১০ জন শিশু থাকতে পারেন।
প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর সাদা বালির এ দ্বীপে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বহু মানুষ ছুটি কাটাতে আসেন। আড়াই একর জায়গা জুড়ে ছড়িয়ে থাকা ব্যক্তিগত এ দ্বীপে এক হাজার বর্গফুট আয়তনের পাঁচটি বিলাসবহুল ভিলা রয়েছে। এখানে অবকাশ যাপনের জন্য খেলা কিংবা নৌকায় ঘোরাঘুরির ব্যবস্থাও রেখেছে কর্তৃপক্ষ।
তবে চাইলেই এই দ্বীপে সবাই যেতে পারে না। কারণ এখানকার খরচটা তুলনামূলকভাবে বেশি। কানুর ওয়েবসাইটের তথ্য অনুযায়ী, এ দ্বীপে আট জন লোকের এক সপ্তাহের জন্য প্রতি রাতে খরচ পড়বে ২৯ হাজার ৫০০ ডলার। সেই হিসেবে একরাতের জন্য একজনের খরচ পড়ে ৫০০ ডলার। আর যদি লোকের সংখ্যা আট ছাড়িয়ে যায়, তবে প্রতি রাতে প্রাপ্তবয়স্কদের জন্য অতিরিক্ত ১৭৫ ডলার দিতে হয়। খবর : ডেইলিবাংলাদেশ’র।