কর্মচারীদের আন্তরিকতায় উন্নয়ন কর্মকা- বেগবান হচ্ছে

0
116

চট্টগ্রাম অফিসার্স ক্লাবে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিভাগীয় কমিশনার

‘বিভাগীয় ও জেলা প্রশাসনের কর্মচারীদের কর্মদক্ষতা সরকারের ভাবমূর্তি রক্ষা করে। যে কোন প্রাকৃতিক দুর্যোগেও তারা ঝুঁকির মধ্যে কাজ করে। কর্মচারীদের সততা ও আন্তরিকতার কারণে বর্তমান সরকারের উন্নয়ন কর্মকা- আরো বেগবান হচ্ছে। সরকারের অনেক গুরুত্বপূর্ণ কাজে কর্মচারীরা প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে ভূমিকা রাখে বলেই দেশ অনেকদূর এগিয়ে গেছে। সরকারের নিরলস প্রচেষ্টায় দেশ মধ্যম আয়ের থেকে উন্নত দেশের কাতারে পৌঁছেছে। আগামীতে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ বিনির্মাণে বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়নের মহাসড়কে সবাইকে সামিল হতে হবে।’
গতকাল শনিবার সকাল ১১টায় চট্টগ্রাম অফিসার্স ক্লাবে কে.সি.দে ইনস্টিটিউট (অফিসার্স ক্লাব) আয়োজিত সংবর্ধনা ও বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার এ বি এম আজাদ এনডিসি এসব কথা বলেন। কেসিদে ইনস্টিটিউট (অফিসার্স ক্লাব) চট্টগ্রামের সভাপতি মুহাম্মদ ইউনুছের সভাপতিত্বে ও সাহিত্য সম্পাদক নুরুল মুহাম্মদ কাদেরের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা ও বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক ও অতিরিক্তি জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) ড. মো. বদিউল আলম। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (চউক) সচিব ইয়াছমিন পারভীন তিবরীজি ও বাশার গ্রুপ অব কোম্পানীজের চেয়ারম্যান অ্যান্ড সিইও এমএ বশর আবু। অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কে সি দে ইনস্টিটিউট (অফিসার্স ক্লাব) চট্টগ্রামের সহ-সভাপতি কামরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক মো. নাসির উদ্দিন চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. জামাল উদ্দিন ও নেপাল কান্তি দাশ প্রমুখ।
সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে কে সিদে ইনস্টিটিউট (অফিসার্স ক্লাব) কর্তৃক প্রকাশিত ‘প্রয়াস’ নামক বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন বিভাগীয় কমিশনার। একই সাথে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মুহাম্মদ ইউনুছ, নাজির মো. জামাল উদ্দিন ও বিভাগীয় কমিশনার কার্যালয়ের উচ্চমান সহকারী নেপাল কান্তি দাশকে সংবর্ধনা জ্ঞাপন করা হয়। এসময় সংগঠনের অবসরপ্রাপ্ত ৮ জন সদস্যকে সংবর্ধনা, ৬৫ জনকে বয়স্কভাতা, সদস্যদের এসএসসিতে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত ২৭ জন সন্তান ও ৮৬ জন সন্তানকে শিক্ষাবৃত্তি এবং গর্বিত ৪ পিতা-মাতাকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়। বিজ্ঞপ্তি