আদর্শিক জীবনের অধিকারী ছিলেন ড. আবু ইউসুফ

0
144

স্মরণসভায় বক্তারা

মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক চবি সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ড. আবু ইউসুফ এর মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে অধ্যাপক ড. আবু ইউসুফ স্মৃতি সংসদ ও সন্দীপনা কেন্দ্রীয় সংসদ এর উদ্যোগে আয়োজিত কর্মসূচি ২৭ নভেম্বর পালিত হয়। কর্মসূচির মধ্যে ছিল মরহুমের সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ, দোয়া মাহফিল, স্মৃতিচারণমূলক আলোচনা সভা।
২৭ নভেম্বর সকাল ৯টায় স্মৃতি সংসদের পক্ষ থেকে চবি ক্যাম্পাসে মরহুমের কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়। সকাল ১০টায় অনুষ্ঠিত দোয়া মাহফিল ও মুনাজাত পরিচালনা করেন হাফেজ মিজানুর রহমান। সকাল ১১টায় স্মৃতিচারণমূলক আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন পরিষদের সভাপতি গবেষক অধ্যক্ষ শেখ এ রাজ্জাক রাজু। সম্মানিত অতিথি আলোচকবৃন্দের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চবি সিনেট সদস্য, সমাজ বিজ্ঞানী ড. মঞ্জুর উল আমিন চৌধুরী, রাজনীতিবিদ দীপংকর চৌধুরী কাজল, চবি গাবেষক ভাষ্কর ডি কে দাশ মামুন, যুব নেতা হাবিবুর রহমান হাবিব, সাংবাদিক মুকুল কান্তি সিকদার, সংগঠক প্রণব রাজ বড়–য়া, ইঞ্জিনিয়ার সঞ্চয় কুমার দাশ, গীতি কবি ইমরান ফারুকী, সংগঠক মোশারফ হোসেন খান রুনু, নাট্যকর্মী আজগর আলী, শিল্পী সজীব মিত্র, সাংস্কৃতিক সংগঠক মো. জাবের, নাট্যকর্মী জাহানারা পারুল, বৃষ্টি দাশ প্রমুখ। আলোচনায় বক্তারা বলেন, এক আদর্শিক জীবনের অধিকারী ছিলেন অধ্যাপক ড. আবু ইউসুফ। বাঙ্গালী জাতি সত্তার মৌলিক ও বাস্তব অনুভূতির বিকাশ ঘটাতে তিনি করে-করিয়ে নতুন সমাজ বিনির্মাণ করার সংগ্রামে জীবন ভর শিক্ষকতার মতো মহৎ পেশাকে বেছে নিয়েছিলেন। মুক্তিযুদ্ধের আদর্শের বাংলাদেশ গড়তে আমৃত্যু তিনি ছিলেন অবিচল । সভায় বক্তারা আরো বলেন, এই মহৎপ্রাণ শিক্ষকের যাপিত জীবন ছিল শুদ্ধতম বাঙালীয়ানার অন্যন্য উপমা। বক্তারা চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে তার নামে একটি হল ও একটি অনুষদের নামকরণের জোর দাবী জানান। বিজ্ঞপ্তি