বুদ্ধিজীবী হত্যা ইতিহাসের একটি কালো অধ্যায়

0
126

আইআইইউসি’র আলোচনা সভা

আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রাম (আইআইইউসি)’র ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর কে.এম. গোলাম মহিউদ্দিন বলেছেন, পরিকল্পিত বুদ্ধিজীবী হত্যাযজ্ঞের ক্ষতি জাতিকে যুগ যুগ বহন করতে হবে। সব বুদ্ধিজীবী হত্যার হোতাদের জাতির সামনে তুলে ধরতে হবে।
গতকাল ১৪ ডিসেম্বর সকালে আইআইইউসি আয়োজিত বুদ্ধিজীবী দিবসের ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর কে.এম গোলাম মহিউদ্দিন এ কথা বলেন।
আইআইইউসি’র প্রো ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আলী আজাদীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ আয়োজনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন আইকিউএসি’র ডিরেক্টর প্রফেসর ড. মো. দেলাওয়ার হোসেন।
স্বাগত বক্তব্য রাখেন আইআইইউসি’র সায়েন্সেস অব হাদীস অ্যান্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মো. নাজমুল হক নদভী। অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন কলা ও মানবিক অনুষদের ডিন ড. মোহাম্মদ রিয়াজ মাহমুদ এবং স্টাফ ডেভলাপমেন্ট অ্যান্ড স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার ডিভিশনের অতিরিক্ত পরিচালক মুহাম্মদ মাহফুজুর রহমান। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন স্টুডেন্ট অ্যাফেয়ার্স ডিভিশনের অতিরিক্ত পরিচালক মাহাম্মদ মামুনুর রশীদ। প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর কে.এম গোলাম মহিউদ্দিন বলেন, নৈতিকতার সংস্কৃতি গড়ে তুলতে না পারলে দুর্নীতি দূর করা সম্ভব হবেনা।
আইকিউএসি’র ডিরেক্টর প্রফেসর ড. মো. দেলাওয়ার হোসেন বলেন, প্রকৃত জ্ঞানার্জন আমাদের এই ধ্বংসের বৃত্ত থেকে বের করে আনতে পারে। কলা ও মানবিক অনুষদের ডিন ড. মোহাম্মদ রিয়াজ মাহমুদ বলেন, বুদ্ধিজীবী হত্যা ইতিহাসের একটি কালো অধ্যায়। তিনি বলেন, শিক্ষার আলোকে আলোকিত ও নৈতিক সমাজ গড়ে তুলতে হলে আমাদের সৃজনশীল জ্ঞানচর্চা বাড়াতে হবে এবং জাতীয়তাবোধে উজ্জীবিত হতে হবে। সায়েন্সেস অব হাদীস অ্যান্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মো. নাজমুল হক নদভী বলেন, পাকিস্তানিরা আমাদের বুদ্ধিবৃত্তিক শক্তিকে আঘাত করতে চেয়েছিল।
স্টাফ ডেভলাপমেন্ট অ্যান্ড স্টুডেন্ট ওয়লফেয়ার ডিভিশনের অতিরিক্ত পরিচালক মুহাম্মদ মাহফুজুর রহমান বলেন, পরাজয় নিশ্চিত জেনেই জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের হত্যা করা হয়েছিল। বিজ্ঞপ্তি