পাঁচশ ছাড়ালো রাঙামাটিতে করোনা শনাক্ত

0
237

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাঙামাটি :

পার্বত্য জেলা রাঙামাটিতে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে নভেল করোনাভাইরাসের (কভিড-১৯) সংক্রমণ।  রোববার চট্টগ্রাম  ভেটেনারি এন্ড অ্যানিমেল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয় (সিভাসু) ল্যাব  থেকে আসা ৩৯টি নমুনা রিপোর্টের ১৬টি পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। নতুন শনাক্তদের মধ্যে সদর উপজেলার ১৩ জন, নানিয়ারচর উপজেলার ৩ জন। এনিয়ে রাঙামাটিতে মোট করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫১১ জনে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে জেলা সিভিল সার্জন অফিসের করোনা বিষয়ক ফোকাল পারসন ও মেডিক্যাল অফিসার ডা. মোসত্মফা কামাল জানিয়েছেন, রোববার সকালে সিভাসু ল্যাব থেকে রাঙামাটিতে ৩৯টি রিপোর্ট এসেছে; যার ১৬ টিই পজিটিভ। নতুন শনাক্তদো মধ্যে সদর উপজেলার ১৩ জন ও নানিয়ারচর উপজেলার ৩ জন রয়েছেন। এরমধ্যে নানিয়ারচরে দুইজন স্বাস্থ্যকর্মী ও সদরে আক্রান্তদের মধ্যে বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য রয়েছেন। রোববার আসা রিপোর্টের নমুনা ১৭ জুলাই পাঠানো হয়েছিল। এ পর্যন্ত রাঙামাটিতে আক্রান্ত শনাক্ত পাঁচশ ছাড়িয়েছে।

রাঙামাটি সিভিল সার্জন কার্যালয়ের তথ্য বলছে, ৬ মে দেশের সবশেষ জেলা হিসেবে রাঙামাটিতে প্রথম ধাপে চারজনের দেহে কভিড-১৯ শনাক্ত হয়। পরবর্তীতে এ সংখ্যা ক্রমান্বয়ে দাঁড়িয়েছে ৫১১ জনে। তবে সবচেয়ে বেশি ৩১৪ জন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে রাঙামাটি সদরেই। শনাক্তে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ স্থানে রয়েছে কাপ্তাই, এ উপজেলায় ৯১ জনের করোনা শনাক্ত হয়। এখন পর্যন্ত জেলায় সবচেয়ে কম সংক্রমণ হওয়া উপজেলা হলো বরকল। এ উপজেলায় মাত্র ৪ জন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে।

রোববারসহ জেলায় ৩৬৭ জন করোনা রোগী সুস’ হয়ে উঠেছেন। বর্তমানে জেলায় প্রাতিষ্ঠানিক আইসোলেশনে আছেন ৯ জন এবং করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৮ জন। এছাড়া করোনা পরীড়্গার জন্য এ পর্যন্ত রাঙামাটি থেকে মোট ২৬২৯টি নমুনা পাঠানো হয়েছে। এরমধ্যে রিপোর্ট এসেছে ২৫২৩টি, যার ৫১১টিই পজিটিভ। এখনো অপেক্ষমান নমুনা রিপোর্টের সংখ্যা ১০৬।