অক্সিজেন সিলিন্ডারের মান নিয়ে প্রশ্ন

0
287
নগরীর এনায়েত বাজার এলাকার বিসমিল্লাহ মেরিন স্টোর নামের একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট

জেলা প্রশাসনের অভিযানে ২ লক্ষ টাকা জরিমানা #

নিজস্ব প্রতিবেদক :
করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তারের মধ্যে বাজারে হঠাৎ অক্সিজেন সিলিন্ডারের চাহিদা বৃদ্ধি পেয়েছে। বেশি দামে বিক্রি করলেও সিলিন্ডারগুলোর মান নিয়ে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। জেলা প্রশাসনের নিয়মিত অভিযানে উঠে আসছে ভয়াবহ চিত্র।
বুধবার (১০ জুন) বেলা সাড়ে ১১টা থেকে আড়াইটা পর্যন্ত জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট গালিব চৌধুরীর নেতৃত্বে নগরীর আন্দরকিল্লা মোড় ও এনায়েত বাজারে ভ্রাম্যামাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে।
অভিযানে নগরীর এনায়েত বাজার এলাকার বিসমিল্লাহ মেরিন স্টোর নামের একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে ১ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা এবং আন্দরকিল্লা মোড়ের এবি সার্জিক্যালকে অধিক মূল্যে অক্সিজেন সিলিন্ডার বিক্রি করায় ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।
জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট গালিব চৌধুরী সুপ্রভাতকে বলেন, করোনার সংকটের মধ্যে গুণগত মানসম্পন্ন অক্সিজেন সিলিন্ডার ন্যায্যমূল্যে প্রাপ্তি নিশ্চিতে অভিযান পরিচালিত হয়। অক্সিজেন সিলিন্ডার দুই ধরনের হয়ে থাকে- ইন্ডাস্ট্রিয়াল গ্রেড ও মেডিক্যাল গ্রেড। মুমূর্ষু রোগীদের জন্য ব্যবহৃত অক্সিজেন প্রায় শতভাগ বিশুদ্ধ হতে হয়, যা ইন্ডাস্ট্রিয়াল গ্রেড অক্সিজেন সিলিন্ডারের ক্ষেত্রে নিশ্চিত করা হয় না। এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী মানুষের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে জাহাজ থেকে পাওয়া মানহীন সিলিন্ডারগুলোতেও কোনোরূপ পরীক্ষা-নিরীক্ষা ছাড়া অক্সিজেন রিফিলিং করছে এবং ক্রেতাদের কাছ থেকে বিপুল মুনাফা হাতিয়ে নিচ্ছে।
তিনি আরো বলে, অভিযানে নগরীর এনায়েত বাজার এলাকার বিসমিল্লাহ মেরিন স্টোর নামের একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে ১ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিক-কর্মচারী অক্সিজেন সিলিন্ডার আমদানির কোন ধরনের ইনভয়েস ও প্রয়োজনীয় ব্যবসায়িক কাগজপত্র দেখাতে পারেনি। নিজেদের মতো করে দাম বৃদ্ধি করে বিক্রয় করে আসছে এসব মানহীন অক্সিজেন সিলিন্ডার। প্রতিষ্ঠানটির ফায়ার এক্সটিংগুইশার আমদানির প্রয়োজনীয় কাগজপত্র থাকলেও অক্সিজেন সিলিন্ডার আমদানি ও মজুদের জন্য বিস্ফোরক অধিদপ্তর প্রদত্ত লাইসেন্সসহ অন্যান্য কাগজপত্র নেই। এমনকি তার বিক্রয় ক্যাশমেমোতে থাকা কার্বন কপিতে ক্রেতার নাম ঠিকানা লেখা ছিল না। এ প্রতিষ্ঠান থেকেই নগরীর মেডিক্যাল মোড়, আন্দরকিল্লা, চকবাজার, আসকার দীঘির পাড়ের অক্সিজেন সিলিন্ডারের মৌসুমী ব্যবসায়ীরা সিলিন্ডার সংগ্রহ করে থাকেন।
নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট গালিব চৌধুরী আরো বলেন, আন্দরকিল্লা মোড়ের এবি সার্জিক্যালকে অধিক মূল্যে অক্সিজেন সিলিন্ডার বিক্রয় করায় ১০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।