হেইডেনকে ভারতে বাণিজ্যিক দূত নিয়োগ করলো অস্ট্রেলিয়া

0
252

সুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক :
ভারতের মাটিতে অন্যতম সফল ক্রিকেটার তিনি। এবার তাকে ভারতের সঙ্গে বাণিজ্যিক দূত নিয়োগ করল অস্ট্রেলিয়া সরকার। তিনি হলেন অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন বাঁ-হাতি ওপেনার ম্যাথু হেডেন। তার সঙ্গে এই দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে ভারতীয় বংশোদ্ভূত রাজনীতিবিদ লিসা সিং-কে।
ভারতের সঙ্গে ব্যবসায়িক সম্পর্ক উন্নয়নের জন্য বাণিজ্যিক দূত হিসাবে এই দু’জন কাজ করবেন বলে অস্ট্রেলিয়া সরকারের তরফে জানানো হয়েছে। সোমবার অস্ট্রেলিয়া-ভারত কাউন্সিলের বোর্ডে তিনটি নতুন নিয়োগের ঘোষণা দেওয়া হয়। বিদেশ বিষয়ক মন্ত্রী মেরিস পেইন বলেন, ‘অশোক জ্যাকবকে আবার সভাপতির পদে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। বোর্ডের তিন সদস্যের সঙ্গে যোগ দেবেন তিনি।’
তাসমানিয়ার প্রাক্তন লেবার পার্টির সিনেটর লিসা সিং উপ-সভাপতিত্ব করবেন। প্রাক্তন ভিক্টোরিয়ার প্রিমিয়ার টেড বেলিউইউ এবং প্রাক্তন ক্রিকেটার হেডেন হলেন আরও এক নতুন সদস্য। পেইন জানান, কাউন্সিল ভারতের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ার বৈদেশিক ও অর্থনৈতিক নীতি এগিয়ে নিয়ে যেতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।
৪৮ বছর বয়সি বাঁ-হাতি ওপেনার হেডেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সুনামের সঙ্গে দীর্ঘদিন খেলেছেন। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ১০৩টি টেস্ট এবং ১৬১টি ওয়ান ডে ম্যাচ খেলেছেন। ৪০টি আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরির মালিক ১১ বছর আগে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়েছেন। ব্যাট হাতে ভারতের মাটিতে ভারতীয় স্পিনারদের সামনে চিনের প্রাচীর হিসেবে দাঁড়িয়ে থাকতেন হেডেন। ক্রীড়াঙ্গনে তার অসামান্য সাফল্যের জন্য ২০১০ সালে তাকে ‘অর্ডার অফ অস্ট্রেলিয়া’ সন্মানে ভূষিত করা হয়। ২০১৮ সাল থেকে ভারত-অস্ট্রেলিয়া ইনগেজমেন্টের বোর্ড সদস্য হিসেব দায়িত্ব পালন করে আসেছেন হেডেন।
জ্যাকব ২০১৪ সাল থেকে কাউন্সিলের সভাপতির দায়িত্ব পালন করে চলেছেন। তিনি বিনিয়োগ পরিচালন গ্রুপ এলারস্টন ক্যাপিটালের নির্বাহী চেয়ারম্যান। আর লিসা সিং ২০১০ থেকে ২০১৯ পর্যন্ত ফেডারেল সিনেটে তাসমানিয়ার প্রতিনিধিত্ব করেছেন। ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক গড়ে তোলার ক্ষেত্রে ভারতীয় ঐতিহ্যের স্বরূপ ভারত সরকার দ্বারা প্রবাসী ভারতীয় সম্মান পুরষ্কার পেয়েছেন লিসা সিং। প্রাক্তন ভিক্টোরিয়ার প্রধান বেলিউইয় ১৯৯৯ থেকে ২০১৪ পর্যন্ত ভিক্টোরিয়ান আইনসভার সদস্য ছিলেন। ২০১৩ সালে অস্ট্রেলিয়া ইন্ডিয়া বিজনেস কাউন্সিলের তরফে তাকে অশোক পদক দেওয়া হয়েছিল। খবর : কলকাতাটোয়েন্টিফোর’র।