‘সংরক্ষিত’ রাখতে হবে মারাদোনার দেহ

0
146

সুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক :
পরলোক গমনের পরও তাকে নিয়ে যেত টানাপোড়েন শেষ হতে চাইছে না। ‘সংরক্ষিত’ রাখতে হবে ফুটবলের রাজপুত্র দিয়েগো মারাদোনার মরদেহ। এবার এমনই নির্দেশ দিল আর্জেন্টিনার একটি আদালত।
গত মাসে গোটা বিশ্বকে কাঁদিয়ে ৬০ বছর বয়সেই বিদায় নেন বাঁ-পায়ের ম্যাজিশিয়ান। তারপর থেকেই তার সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে শুরু হয় জলঘোলা। এরই মধ্যে এক যুবতী মারাদোনাকে নিজের বাবা বলে দাবি করে বসেন। ফলে সম্পত্তির ভাগ নিয়ে পরিস্থিতি আরও জটিল হয়। সেই পরিপ্রেক্ষিতেই আর্জেন্টিনার আদালত জানায়, বাবা-মেয়ের সম্পর্ক প্রমাণের জন্য প্রয়াত মারাদোনার উঘঅ নমুনা জমা দিতে হবে। আর সেই কারণেই তার মরদেহ সংরক্ষিত রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।
এক স্ত্রীয়ের থেকে দুই কন্যা সন্তানের বাবা হয়েছিলেন মারাদোনা। কিন্তু তার সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদের পর জানা যায়, কন্ট্রোভার্সি কিংয়ের আরও ছ’টি ছেলে-মেয়ে রয়েছে। কিন্তু কিংবদন্তির প্রয়াণের পর তাকে বাবা বলে দাবি করেন বছর পঁচিশের মগালি গিল। যার বিষয়ে এর আগে শোনা যায়নি কখনও। তার দাবি, বছর দুয়েক আগে তার মা তাকে জানান, মারাদোনা তার বাবা হলেও হতে পারেন। মারাদোনা সত্যিই তার বাবা কি না, এরপরই তা জানতে আগ্রহী হয়ে ওঠেন গিল। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিও পোস্ট করেও সে আবেদন জানিয়েছিলেন তিনি।
উল্লেখ্য, গত ২৫ নভেম্বর মারাদোনার প্রয়াণের পর তাকে বুয়েন্স আইরেসের একটি সমাধিস্থলে সমাধিস্ত করা হয়। কিন্তু ৩০ নভেম্বর আদালত জানিয়ে দেয়, প্রয়োজনীয় ফরেনসিক টেস্ট না হওয়া পর্যন্ত তাকে সমাধিস্ত করা যাবে না। এবার আদালতের নয়া নির্দেশে নতুন করে তৈরি হল জটিলতা। তবে কি কবর থেকে বের করা হবে মৃতদেহ? ওঠে প্রশ্ন। যদিও শোনা যাচ্ছে, মারাদোনার আইনজীবী জানিয়েছেন, কিংবদন্তির ডিএনএ নমুনা আগে থেকেই সংগৃহীত আছে। তাই তাকে মাটি খুঁড়ে বের করার প্রয়োজন হবে না। খবর : সংবাদপ্রতিদিন’র।