বন্যা বিধ্বস্ত গ্রামের পাশে সালমান

0
237

সুপ্রভাত ডেস্ক :
কথা দিয়েছিলেন। কথা রাখলেন। মহারাষ্ট্রের বন্যা কবলিত খিদরাপুর গ্রামের ৭০টি পরিবারের ক্ষতিগ্রস্ত ঘরের নতুন করে তৈরি করার কাজ শুরু হয়ে গেল সালমান খানের সাহায্যে। একটানা বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত মহারাষ্ট্রের বিস্তীর্ণ অঞ্চল। এর মধ্যেই পড়ে খিদরাপুর গ্রাম। একে করোনা সংকট, তার উপর বন্যা পরিস্থিতিতে জেরবার এলাকার মানুষ। গ্রামের ৭০টি বাড়ি ভীষণভাবে ক্ষতিগ্রস্ত। এমন অবস্থায় বিধ্বস্ত এলাকার মানুষদের সহায় হলেন বলিউডের ভাইজান। সালমান খানের ‘বিইং হিউম্যান’ সংস্থার সাহায্যেই গ্রামের ক্ষতিগ্রস্ত বাড়িগুলির পুনর্নির্মাণের কাজ শুরু করেছে মহারাষ্ট্র সরকার। মহারাষ্ট্র সরকারের মন্ত্রী রাজেন্দ্র পাটিল যদ্রাভকর টুইট করে একথা জানিয়েছেন। ছবি শেয়ার করে ক্যাপশনে সালমান খানকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তিনি।
২০১৯ সালে মহারাষ্ট্রের এই গ্রামকে দত্তক নিয়েছিলেন সালমান। সেই থেকেই গ্রামের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজে যুক্ত তার ‘বিইং হিউম্যান’ সংস্থা। করোনা পরিস্থিতিতেও গ্রামে মাস্ক, স্যানিটাইজারের মতো সরঞ্জাম পাঠানো হয়েছে সালমানের সংস্থার পক্ষ থেকে। পাঠানো হয়েছিল বন্যা ত্রাণের সামগ্রী। এবার দত্তক নেওয়া গ্রামের ক্ষতিগ্রস্ত বাড়িগুলি সংস্কারের উদ্যোগে যোগ দিলেন বলিউডের সুলতান। এর পাশাপাশি করোনা পরিস্থিতির মধ্যেই কাজে ফিরছেন সালমান খান। ইতিমধ্যেই ‘বিগ বস ১৪’-এর কাজ শুরু করে দিয়েছেন। আবার প্রভু দেবার পরিচালনায় ‘রাধে ইওর মোস্ট ওয়ান্টেড ভাই’-এর শুটিং ও খুব শিগিগিরিই শুরু করতে চলেছে। তারপর ক্যাটরিনা কাইফের সঙ্গে শুরু করবেন টাইগার সিরিজের তৃতীয় ছবির কাজ। জ্যাকলিন ফার্নান্ডেজের সঙ্গে আবার ‘কিক ২’ ছবিতে জুটি বাঁধবেন সালমান। খবর : সংবাদপ্রতিদিন’র।