ফুলকির ছোটদের বৈশাখী মেলা

0
51

করোনা অতিমারীর জন্য শিশুদের সাংস্কৃতিক জগৎ ফুলকির আয়োজনে ১লা বৈশাখ ১৪২৮ অনুষ্ঠিত হলো বৈদ্যুতিন ছোটদের বৈশাখী মেলা অনুষ্ঠিত হয়। দিনব্যাপী এ আয়োজেন সকাল সাড়ে ১০টায় ছিল ফুলকির শিক্ষার্থীদের পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক পরিবেশনা।
একঘণ্টার এ আয়োজনে ছিল সঙ্গীত, আবৃত্তি, বৈশাখী মেলা ও জব্বারের বলি খেলার মেলা নিয়ে এবং নানা রকমের পিঠা নিয়ে স্লাইড শো প্রদর্শনী, ব্রতচারী নৃত্য, ভরতনাট্যম ও কত্থক নৃত্য। অনুষ্ঠানের সঞ্চালনায় ছিলেন ফুলকির সুহৃদ জিনাত ইসলাম।
অনুষ্ঠানে ফুলকির অধ্যক্ষ শীলা মোমেন বলেন, ‘করোনা অতিমারীতে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে শিশুরা। শিশুদের জন্য ফুলকি নানা রকম বৈদ্যুতিন আয়োজন করে আসছে প্রথম থেকেই। শিশুদের মন ও মননের বিকাশে বাড়ির বড়দের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।’
ফুলকি ট্রাস্টের সভাপতি কবি ও সাংবাদিক আবুল মোমেন বলেন, ‘আমাদের দেশ নানারকম প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলা করেই এগিয়ে যাচ্ছে। বর্তমান সময়ে করোনা অতিমারীকে আমাদের মোকাবেলা করতে হবে সঠিক স্বাস্থ্যবিধি মেনে। শিশুদের বাসায় বইপড়ে, গানশুনে ও যতদিন বিদ্যালয় না খুলবে ততদিন ল্যাপটপ ও মোবাইল ডিভাইসের মাধ্যমেই তাদের পড়াশুনা চালিয়ে যেতে হবে।’
এছাড়া বেলা ১২টায় ছিল বৈদ্যুতিন বই মেলা। বই মেলায় শিশুদের উপযোগী ১২৭ রকমের বই প্রদর্শন করা হয়। ওয়েব সাইটের মাধ্যমে শিশুরা বই ক্রয় করার ব্যবস্থা করা হয়। দুপুর ২টায় ছিল দূরশিক্ষণ কার্যক্রমে অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের আঁকা ছবি নিয়ে বৈদ্যুতিন প্রদর্শনী। সবশেষে বিকেল ৪ টায় বৈদ্যুতিন বিজ্ঞান আয়োজন। এ আয়োজনে ফুলকির শিক্ষার্থীরা বিজ্ঞানের বিভিন্ন রকমের পরীক্ষা, প্রকৃতি পরিবেশ থেকে ‘বৃষ্টিপাত’, মানব দেহ থেকে ‘পরিপাকতন্ত্র’ এবং শিক্ষকবৃন্দ বিশ্বখ্যাত বিজ্ঞানীদের জীবনী, করোনা অতিমারী বিষয়ে স্লাইড শো উপস্থাপন করেন। নিরানন্দ এ সময়ে ফুলকির এ আয়োজন শিশুরা অভিভাবকদের সাথে ঘরে বসে নিরাপদে আনন্দে উপভোগ করেছে। বিজ্ঞপ্তি