নৌকায় মিলল ইয়াবা বাসায় কোটি টাকা

0
120

কক্সবাজারে অভিযানে

নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজার:
কক্সবাজারে সাত বস্তা ইয়াবাসহ আটক হওয়া ইয়াবা কারবারি জহিরুল ইসলাম ফারুকের বাড়ি থেকে দুই বস্তা (এক কোটি ৭০ লাখ ৬৩ হাজার) টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেল ৫টার দিকে ফারুকের নুনিয়ারছড়ার বাড়ি থেকে এসব টাকা উদ্ধার করে পুলিশ। এর আগে কক্সবাজার জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে ইয়াবার বিশাল চালান উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে। কক্সবাজার সদর উপজেলার খুরুশকুল-চৌফলদণ্ডি ব্রিজের পাশে ভারুয়াখালী খালে নোঙর করা একটি ইঞ্জিনচালিত নৌকায় এই অভিযান চালানো হয়। অভিযানে সাত বস্তা ইয়াবা উদ্ধার করেছে ডিবি। এতে ১৪ লাখ ইয়াবা রয়েছে। ইয়াবা চালানের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ট্রলার মালিকসহ দুই পাচারকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
মঙ্গলবার দুপুর ২টার দিকে কক্সবাজারের পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামানের নেতৃত্বে এ অভিযান চালানো হয়।
গ্রেফতারকৃতরা হলেন ট্রলার মালিক কক্সবাজার শহরের নুনিয়ারছড়া এলাকার মোজাফফরের ছেলে মোহাম্মদ বাবু (৫৫) ও একই এলাকার রাজু মেম্বারের ছেলে মোহাম্মদ ফারুক (৩৭)।
ডিবি ওসি শেখ মোহাম্মদ আলী জানান, পুলিশের কয়েকটি দলের সমন্বয়ে চালানো এই অভিযানে নৌকা থেকে ইয়াবাভর্তি সাতটি বস্তা উদ্ধার করা হয়। প্রতিটি বস্তায় ২৫ থেকে ৩০ কার্টুন ইয়াবা পাওয়া গেছে। সেই হিসেবে এসব বস্তায় মোট ১৪ লাখ ইয়াবা রয়েছে।
জানা গেছে, কক্সবাজার শহরের নুনিয়াছড়ায় কয়েজনের নেতৃত্বে গড়ে উঠেছে ইয়াবা সিন্ডিকেট। সিন্ডিকেটটি দীর্ঘদিন মিয়ানমার থেকে ইয়াবার চালান নিয়ে আসছিলো। চালানগুলো এনে কক্সবাজার শহরসহ সারাদেশে পাচার করতো।
কক্সবাজারের পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান বলেন, আসামিরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন উখিয়ার ইনানীর রেজুরখাল মোহনা থেকে ইয়াবার বিশাল এই চালানটি তারা গ্রহণ করে চৌফলদণ্ডি ঘাটে এনে খালাসের অপেক্ষা করছিলেন। তিনি আরও জানান, আটক জহিরুলের দেওয়া স্বীকারোক্তি মতে তার বাড়ি অভিযান চালানো হয়। এ সময় তার ঘর থেকে ইয়াবা বিক্রির এক কোটি ৭০ লাখ ৬৩ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়। এ চক্রের সঙ্গে কারা কারা জড়িত তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।