টিকা নিতে টাকা আদায়ের অভিযোগ!

0
88

করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ

নিজস্ব প্রতিবেদক <<
করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে দেওয়া সরকারের বিনামূল্যের কোভিড-১৯ টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণে টাকা আদায়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
গতকাল বুধবার নগরীর সাফা মোতালেব মাতৃসদন হাসপাতাল কেন্দ্রে করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিতে যাওয়া ভুক্তভোগীরা এ অভিযোগ করেন। সর্বনিম্ন ৫০ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ১০০ টাকা পর্যন্ত আদায় করা হয়েছে টিকা ও সময় শেষ হয়ে যাওয়ার অজুহাতে।
ভুক্তভোগী পশ্চিম বাকলিয়া ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা সোমা ধর বলেন, ‘সাফা মোতালেব মাতৃসদন হাসপাতালে কোভিড-১৯ টিকার ১ম ডোজ ২৩ ফেব্রুয়ারি গ্রহণ করি। বুধবার কোভিড টিকার ২য় ডোজ দিতে গিয়েছি দুপুরে। তখনও নারী-পুরুষের লম্বা লাইন। এ সময় রুমের ভেতর থেকে টিকা শেষ বলে প্রচার করতে থাকে। পরে লাইনে দাঁড়ানো সকলের কাছ থেকে ৫০ থেকে ১০০ টাকা দাবি করা হয়। সকলে জিজ্ঞেসে করলে এর কোনো সদুত্তর তারা দিতে পারেননি। বাধ্য হয়ে ৫০ টাকা দিতে হয়েছে।’
ভুক্তভোগী আরেকজন এস কে পাল সুজন বলেন, ‘টাকা দিলে টিকা মিলবে, নতুবা মিলবে না এমন এক অবস্থা তৈরি করা হয়েছে কেন্দ্রে। নতুবা পরের দিন আসতে হবে। তাই বাধ্য হয়ে টিকা গ্রহণকারীরা তাদের অন্যায় আবদার রক্ষা করেছে। হাসপাতালে নিচতলায় একটি কক্ষে টিকা দেওয়া হয়েছে। দায়িত্বে ছিলেন ৩ জন। ওই তিনজনই সকলের কাছে প্রকাশ্যে টাকা দাবি করেছে।’
অভিযোগ বিষয়ে জানতে চাইলে ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ আসিফ খান বলেন, ‘টিকা কেন্দ্রটি চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের অধীনে। তবে টাকা আদায়ের বিষয়টি জানা নেই এবং কেউ অভিযোগ করেননি। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানাবো।’
চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সেলিম আকতার চৌধুরী সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘উপযুক্ত প্রমাণ পেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। টাকা নেওয়ার কোনো নিয়ম নেই।’