জয়ের জন্য ৭ উইকেট দরকার বাংলাদেশের

0
111

উইন্ডিজদের দরকার ২৮৫ রান

সুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক :
দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট জিততে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৩৯৫ রানের লক্ষ্য বেঁধে দিয়েছে বাংলাদেশ। লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ১১০ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চতুর্থ দিন শেষ করেছে ক্যারিবীয়রা। জয়ের জন্য শেষ দিন তাদের প্রয়োজন ২৮৫ রান। অন্যদিকে বাংলাদেশের দরকার ৭ উইকেট।
প্রথম টেস্টের চতুর্থ দিন ব্যাট করতে নেমে উইন্ডিজ বোলারদের ওপর ছড়ি ঘোরাতে থাকেন মুমিনুল হক ও লিটন দাস। উইকেটের চারদিকে বাহারি সব শত খেলে ক্যারিয়ারের দশম শতক তুলে নেন টাইগার টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুল। এছাড়া ফিফটি করেন লিটন।
এই দুজনের ব্যাটে ভর করে ৮ উইকেট হারিয়ে ২২৩ রানে ইনিংস ডিক্লেয়ার করে টাইগাররা। ফলে জয়ের জন্য উইন্ডিজের লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩৯৫ রান।
উইন্ডিজের হয়ে ইনিংস উদ্বোধন করতে নামেন ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েট ও জন ক্যাম্পবেল। প্রথমে ক্যাম্পবেলকে ব্যক্তিগত ২৩ রানে লেগ বিফোরের শিকার করেন মিরাজ। এরপরই মিরাজের বলে ইয়াসির আলি রাব্বির দুর্দান্ত ক্যাচে পরিণত হয়ে সাজঘরে ফেরেন ব্র্যাথওয়েট।
এরপর শেন মোসলেকে লেগ বিফোর করে সাজঘরে ফেরান মিরাজ। কিছু ক্যাচের সুযোগ পেলেও সেসব কাজে লাগাতে পারেনি বাংলাদেশ। দলের হয়ে দিনের শেষটা অবিচ্ছিন্ন থেকে কাটিয়ে দেন ক্রুমাহ বোনার ও কাইল মেয়ার্স। দুজনে গড়েছেন ৫১ রানের জুটি। তাদের দৃঢ়তায় ১১০ রানে দিন শেষ করে ক্যারিবীয়রা।
এর আগে শনিবার চতুর্থ দিনের খেলায় স্বাগতিকদের হয়ে ব্যাট করতে নামেন আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান মমিনুল ইসলাম এবং মুশফিকুর রহিম। তবে ইনিংস বড় করতে পারেননি মুশফিক। ব্যক্তিগত ১৮ রানে কর্নওয়ালের শিকার হয়ে ঘরে ফেরেন এ ব্যাটসম্যান।
এক প্রান্তে হাল ধরে রাখেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। লিটন দাসকে সঙ্গে নিয়ে গড়েন শতাধিক রানের জুটি। কাইল মেয়ার্সকে চার হাঁকিয়ে ৯৬ বলে অর্ধশতক পূরণ করেন লিটন। এর কিছু পরই শতক পূরণ করেন মুমিনুল হক। টেস্টে এটি তার দশম শতক, জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে সপ্তম।
শেষ পর্যন্ত ১১৫ রানে আউট হন মুমিনুল, লিটন ফেরেন ৬৯ রানে। সাজঘরে ফেরার আগে মিরাজ ৭ ও তাইজুল ৩ রান করেন। ৮ উইকেট হারানোর পরই ইনিংস ডিক্লেয়ার করেন মুমিনুল।
এর আগে ম্যাচের শুরুতে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে নিজেদের প্রথম ইনিংসে সবকটি উইকেট হারিয়ে ৪৩০ রান সংগ্রহ করে মুমিনুল হকের দল। এই ইনিংসে বাংলাদেশের হয়ে একমাত্র সেঞ্চুরি করেন মেহেদী হাসান মিরাজ। জবাবে ব্যাট করতে নেমে সবকটি উইকেটের বিনিময়ে সফররত ওয়েস্ট ইন্ডিজের সংগ্রহ দাঁড়ায় ২৫৯ রান। খবর : ডেইলিবাংলাদেশ’র।