জেলহত্যা দিবসের আলোচনা সভায় বক্তারা : পরাজিত শক্তি জাতিকে নেতৃত্বশূন্য করতে চেয়েছিলো

0
241

জেলহত্যা দিবস উপলক্ষে নগরীতে বিভিন্ন সংগঠনের উদ্যোগে আয়োজিত আলোচনা সভায় বক্তারা বলেছেন এ ঘৃণ্য হত্যাকা-ের মাধ্যমে স্বাধীনতার পরাজিত শক্তি বাংলার মাটি থেকে আওয়ামী লীগের নাম চিরতরে মুছে ফেলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধ্বংস এবং বাঙালি জাতিকে নেতৃত্বশূন্য করার অপচেষ্টা চালিয়েছিল।
মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড
জেলহত্যা দিবস উপলক্ষে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড চট্টগ্রাম মহানগর কমিটির উদ্যোগে এক আলোচনা সভা সংগঠনের মহানগর আহবায়ক শাহেদ মুরাদ সাকুর সভাপতিত্বে এবং যুগ্ম আহ্বায়ক মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেনের পরিচালনায় দারুল ফজল মার্কেটস্থ বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ মহানগর ইউনিট কমান্ড কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়।
এতে প্রধান অতিথি ছিলেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ চট্টগ্রাম মহানগর ইউনিটের ডেপুটি কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. শহীদুল হক চৌধুরী ছৈয়দ।
বিশেষ অতিথি ছিলেন সহকারী কমান্ডার সাধন চন্দ্র বিশ্বাস। প্রধান বক্তা ছিলেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মো সরওয়ার আলম চৌধুরী মনি।
প্রধান বক্তা সরওয়ার আলম চৌধুরী মনি বলেন, ঘাতক চক্রের উদ্দেশ্য ছিল দেশে নতুন প্রজন্মের কাছ থেকে মুক্তিযুদ্ধের আদর্শকে মুছে ফেলা। কিন্তু ঘাতক চক্রের সেই উদ্দেশ্য সফল হয়নি। তিনি আরো বলেন, এ ঘৃণ্য হত্যাকা-ের মাধ্যমে স্বাধীনতার পরাজিত শক্তি বাংলার মাটি থেকে আওয়ামী লীগের নাম চিরতরে মুছে ফেলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধ্বংস এবং বাঙালি জাতিকে নেতৃত্বশূন্য করার অপচেষ্টা চালিয়েছিল। সভায় আরো বক্তব্য রাখেন কাজী মুহাম্মাদ রাজিশ ইমরান, সদস্য ড. মোহাম্মদ ওমর ফারুক রাসেল, মো. রিপন চৌধুরী, জয়নুদ্দিন জয়, আরাফাতুল মান্নান ঝিনুক, রাজিব সিকদার জয়, মোহাম্মদ ইলিয়াছ, এস এম ইশতিয়াক আহমেদ রুমি, শফিকুল মুনির, কে এম রিগ্যান, মনির হোসেন বিজয়, হাফিজুর রহমান, জাবেদ পাটোয়ারী, মো. ইব্রাহিম বাদশা পপি আক্তার প্রমুখ।
দক্ষিণ বাকলিয়া আওয়ামী লীগ
জেল হত্যা দিবস উপলক্ষে ১৯ নম্বর দক্ষিণ বাকলিয়া ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের উদ্যোগে স্মরণসভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। ময়দার মিলস্থ দলীয় কার্যালয়ে দক্ষিণ বাকলিয়া ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সিনিয়ার সহ-সভাপতি মোস্তাকিম বি.কম এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক ইফতেখার আলম জাহেদের সঞ্চলনায় উক্ত স্মরণসভায় প্রধান অতিথি ছিলেন বাকলিয়া থানা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক হাজী সিদ্দিক আলম। এতে আরো বক্তব্য রাখেন শফিউল আলম, এস.এম. কামাল উদ্দিন, গোলাম রব্বানী মনি, ইসমাইল কোম্পানী, আনিসুর রহমান, বখতেয়ার ফারুক, মো. ইয়াছিন, হোসেন বাদশা, আবুল বশর রুকন, এম. আর ইয়াছিন, নুরুল আলম মিয়া, কাউন্সিলর প্রার্থী শাহীন আক্তার রোজী, মোর্শেদ আলী, জানে আলম, মঈনুল হোসেন বিটু, আলম শালেক, এন.কে আলম সাজ্জাদ, ফরহাদ আহমদ, তোফাজল হোসেন তপু, গাজী আবদুল মান্নান, নুরুল আবছার, আবদুল মান্নান বাপ্পি, জামশেদ শাহ, লিটন দাশ, রিপন হায়দার, মিজান চৌধুরী, আবদুল মুকিত, মো. মানিক ।
মহানগর জাতীয় শ্রমিক লীগ
চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সামনে জেল হত্যা দিবস উপলক্ষে মহানগর জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি সাবেক কাউন্সিলর জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরীর সভাপতিত্বে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় প্রধান বক্তা ছিলেন মহানগর জাতীয় শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম।
এতে আরো বক্তব্য রাখেন নুর মো. চৌধুরী, মো. রিয়াজ, মো. ইসমাইল, আমির হোসেন, মনির হোসেন, মো. রাশেদ, মো. খোকন মিয়া, মো. হাসান, মো. নুর হোসেন, মো. আরিফ, মো. শাহজাহান, মো. বাবুল, মো. রফিক, মো. আনোয়ার হোসেন, মো. হিরন মিয়া, বাবুল শীল, মো. কামাল, মো. লোকমান সিকদার, মো. মহিউদ্দিন প্রমুখ।
বেসিক ইউনিয়ন সমন্বয় পরিষদ
নগরীর দারুল ফজল মার্কেট চত্বরে মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টায় মহানগর জাতীয় শ্রমিক লীগ অন্তর্ভূক্ত বেসিক ইউনিয়ন সমন্বয় পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক উজ্জ্বল বিশ্বাসের সভাপতিত্বে সংগঠনের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. শাহ আলম ভূইয়ার যৌথ সঞ্চালনায় জেলহত্যা দিবস উপলক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী। আলোচনা সভায় তিনি বলেন, চার জাতীয় নেতাকে হত্যা করে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধ্বংস করতে চেয়েছিল ষড়যন্ত্রকারীরা। তারা জানে না ব্যক্তিকে হত্যা করা যায়, কিন্তু আদর্শকে হত্যা করা যায় না।
প্রধান বক্তা জাতীয় শ্রমিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি মুহাম্মদ শফর আলী বলেন, স্বাধীনতা বিরোধীরা জাতীয় চার নেতাকে কারাবেষ্টনীতে নির্মমভাবে হত্যা করে পৃথিবীতে দ্বিতীয় কলঙ্কজনক অধ্যায় সৃষ্টি করেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ মোহাম্মদ ইসহাক, জাতীয় শ্রমিক লীগ পাহাড়তলী শিল্পাঞ্চল শাখার সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা শফি বাঙ্গালী। এতে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মো. বেলাল, যমুনা অয়েল কোং লেবার ইউনিয়ন সিবিএর সভাপতি মো. আবুল হোসেন, জাতীয় শ্রমিক লীগ যমুনা অয়েল শাখার সভাপতি আবুল কাশেম মোল্লা (সবুজ), শ্রমিক নেতা কামাল উদ্দিন চৌধুরী, ইয়াছির আরাফাত, মো. ওসমান গণি, নূরুল আলম লেদু, সৈয়দ মো. ওমর ফারুক, নজরুল ইসলাম খোকন, হারুনুর রশীদ রনি, লোকমান হাকিম, সৈয়দ মো. জাহাঙ্গীর, মো. বখতেয়ার প্রমুখ। বিজ্ঞপ্তি