করোনা মোকাবিলায় ব্যর্থ হয়েছে সরকার : ডা. শাহাদাত

0
238

চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ও বিএনপির মেয়র প্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন আজ ১৮ জুন (বৃহস্পতিবার) এক বিবৃতিতে বলেছেন, করোনা মোকাবিলায় সরকার সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে। বাংলাদেশে ৮ মার্চ করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার পর থেকে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বারবার হুঁশিয়ারি সত্ত্বেও সঠিক পরিকল্পনা ও সমন্বয়ের অভাবে বর্তমানে বিশ্বের করোনা আক্রান্ত ১১৮টি দেশ ও অঞ্চলের মধ্যে প্রতিনিয়ত আক্রান্তের দিক থেকে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে ১৮তম এবং মৃত্যুর দিক থেকে ৩০তম। এপ্রিল থেকে আমরা জোনিং এর কথা বলে আসলেও সরকার এই সিদ্ধান্ত নেয় প্রায় দুই মাস পরে। শুধুমাত্র পরিকল্পনা এবং সমন্বয়ের অভাবে আমাদের প্রিয় শহর চট্টগ্রাম এখন লাশের শহরে পরিণত হচ্ছে। যেখানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মে মাসে আক্রান্তের খুব দ্রুত বাড়বে এই হুঁশিয়ারি দিয়েছিল। সরকার সেটা সম্পূর্ণ উপেক্ষা করে লকডাউন তুলে নিয়ে চট্টগ্রামে বন্দর, ইপিজেড, কাস্টমস, বিভিন্ন মার্কেট, পাবলিক প্লেস খুলে দিয়েছে। ফলে চট্টগ্রাম দ্রুত আক্রান্তের পরিমাণ বাড়ার কারণে ‘রেড জোনে’ পরিণত হয়েছে। মার্চের প্রথম থেকেই চট্টগ্রামের সমস্ত সরকারি, বেসরকারি হাসপাতাল, ক্লিনিকগুলোকে নিয়ে সমন্বয় সভা করে যদি কোভিড, নন-কোভিড, পাশাপাশি করোনা উপসর্গযুক্ত হাসপাতাল চিহ্নিত করা যেতো, তাহলে মৃত্যুর মিছিল দীর্ঘ হতো না।
ডা. শাহাদাত হোসেন আরো বলেন, আগাম পরিকল্পনা ও সমন্বয় থাকলে সেসব হাসপাতালগুলোতে কোভিড/নন কোভিড বেড সংখ্যা নির্ধারণ করা যেতো। পাশাপাশি প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি যেমন- অক্সিজেন সিলিন্ডার, সেন্ট্রাল অক্সিজেন প্লান্ট, হাই-ফ্লো-অক্সিজেন ন্যাজাল ক্যানুলা ও আইসিউ ভেন্টিলেটর ক্রয় করে আগাম সয়ংসম্পূর্ণ করতে পারতো। তাহলে জনগণ চিকিৎসার অভাবে পথে-ঘাটে মৃত্যুবরণ করতো না।
তিনি আরও বলেন, গতকাল একদিনেই করোনা সংক্রমণের সংখ্যা সারাদেশে ৪ হাজারের অধিক গড়িয়েছে। এমতাবস্থায় চট্টগ্রামের করোনা পরিস্থিতি দিন দিন ভয়াবহতার দিকে যাচ্ছে, যেসব এলাকায় রেড জোন ঘোষণা দেয়া হয়েছে সেসব এলাকার জনসাধারণকে ঘর থেকে বের না হয়ে নিজেকে এবং নিজের পরিবারকে নিরাপদ রাখার আহবান জানিয়েছেন।