ইউএস ওপেনে খেলবেন বিয়াঙ্কা

0
216

সুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক :
যুক্তরাষ্ট্র টেনিস অ্যাসোসিয়েশন প্লেয়ারদের কথা ভেবে সর্বোচ্চ স্তরের নিরাপত্তারই বন্দোবস্ত করবে। তাই অগস্টে ইউএস ওপেন খেতাব ধরে রাখার লক্ষ্যে টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণ করতে বাধা নেই তার। জানালেন ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কু। রজার ফেডেরার চোটের কারণে বাকি মরশুম থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন। যুক্তরাষ্ট্রের করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে ইউএস ওপেনে অংশগ্রহণের বিষয়টি নিশ্চিত নয় নোভাক জকোভিচ এবং রাফায়েল নাদালের।
এমনিতেই দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা। তার উপর তারকা প্লেয়ারদের অংশগ্রহণ ঘিরে সন্দেহ দানা বাঁধায় ইউএস ওপেনের জৌলুষ কতটা থাকবে, তা নিয়ে চিন্তায় টেনিসমহল। এমন সময় বৃহস্পতিবার ছ’বারের চ্যাম্পিয়ন সেরেনা উইলিয়ামস জানান নিজের দেশে গ্র্যান্ড স্লাম অংশগ্রহণে তার কোনও আপত্তি নেই। আর সেরেনা ঘোষণা করার কয়েকঘন্টার মধ্যেই ইউএস ওপেনে অংশগ্রহণের ব্যাপারে সবুজ সংকেত দিয়ে দিলেন গতবছর সেরেনাকেই হারিয়ে খেতাব জেতা বিয়াঙ্কা।
বুধবার ইউএসটিএ গ্র্যান্ড স্লাম আয়োজনের ব্যাপারে একটি বিস্তারিত নির্দেশিকা এবং প্রোটোকল টুইটারে পোস্ট করে। সেই নির্দেশিকার প্রত্যুত্তরে এদিন বিয়াঙ্কা লেখেন, ‘আমার কোনও সন্দেহ নেই যে টেনিস ফেরাতে উদ্যোগী যুক্তরাষ্ট্র টেনিস অ্যাসোসিয়েশন প্লেয়ারদের কথা ভেবে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ব্যবস্থার পরিকল্পনা করবে।’
উল্লেখ্য, আগামী ৩১ আগস্ট থেকে টুর্নামেন্টের শুরুর কথা ঘোষণা করেছে ইউএসটিএ। চলবে ১৩ সেপ্টেম্বর অবধি। প্রোটোকল অনুযায়ী গ্র্যান্ড স্লাম খেলতে নিউ ইয়র্কের উদ্দেশ্যে রওনা হওয়ার আগে কোভিড১৯ পরীক্ষা হবে প্রত্যেক প্লেয়ারের। এরপর নিউইয়র্কে পৌঁছনোর পর যতদিন তারা থাকবেন, সেই সময়ে প্রতি সপ্তাহে একবার কিংবা দুবার করে তাদের শরীরে করোনা পরীক্ষা করা হবে।
দিনকয়েক আগে নিউইয়র্কে খেলতে আসার ব্যাপারে জোকার-রাফার অনীহা প্রসঙ্গে বিয়াঙ্কা জানিয়েছেন, ‘আমি তাদের সিদ্ধান্তকে একেবারেই হালকাভাবে নিচ্ছি না। আমি ওদের ব্যক্তিগত মতামতকে পূর্ণ সমর্থন জানাচ্ছি।’ তবে নিজের অংশগ্রহণের ব্যাপারে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন জানিয়েছেন, ‘আমি কোর্টে ফেরার সুযোগ কাজে লাগাতে চাই। প্লেয়ারদের সঙ্গে, কোর্টের বন্ধদের সঙ্গে পুনরায় মিলিত হতে চাই। আশা করি লক্ষ লক্ষ অনুরাগীদের কাছে টেনিস নিরাপদেই ফিরবে।’
খবর : কলকাতাটোয়েন্টিফোর’র।