আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করেছে আফ্রিদি : কানেরিয়ার

0
246

সুুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক :
ইসলামিক প্রজাতন্ত্র পাকিস্তানে বরাবরই ধর্মীয় নিপীড়নের শিকার হয়ে এসেছেন ‘সংখ্যালঘু’ হিন্দুরা। ব্যতিক্রম নন জাতীয় দলে খেলা প্রাক্তন স্পিনার দানিশ কানেরিয়াও। পাক দলে খেলার সময় ষড়যন্ত্রের শিকার হয়েছিলেন। অনেক আগেই এই অভিযোগ করেছেন কানেরিয়া। এবার প্রকাশ্যে আনলেন তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রকারীর নাম। সরাসরি তোপ দাগলেন পাকিস্তানের প্রাক্তন অধিনায়ক শাহিদ আফ্রিদির বিরুদ্ধে।
কানেরিয়ার অভিযোগ, ‘শুরু থেকেই শাহিদ আমার বিরুদ্ধে ছিল। আমাকে সবসময় আলাদা করে দেখত।’ প্রাক্তন পাক স্পিনার বলছেন, ‘আমরা যখন একসাথে খেলতাম ও আমাকে সবসময় দলের বাইরে রাখত। ও আমাকে ওয়ানডে ক্রিকেট খেলতেই দেয়নি। ১০ বছরের কেরিয়ারে আমি মাত্র কয়েকটা ম্যাচ খেলেছি। কারণ বছরে আমাকে ২-৩ টার বেশি ম্যাচ খেলার সুযোগই দেওয়া হত না।’ উল্লেখ্য, দানিশ আগেই অভিযোগ করেছেন, হিন্দু হওয়ায় তার সতীর্থরা তার সঙ্গে বিদ্বেষমূলক আচরণ করত। ধর্মবিদ্বেষ নিয়ে মুখ খোলায় পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড তার রোজগার বন্ধের চেষ্টা করছে। এমনকি, তাকে টেলিভিশন চ্যানেলে কাজ দেওয়াও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এমন অভিযোগও করেছেন তিনি। যদিও দানিশের সব অভিযোগ অনেক আগেই খারিজ করে দিয়েছেন পাক ক্রিকেটের রথী-মহারথীরা। অনেকেই বলেছেন, স্রেফ শিরোনামে আসার জন্য মিথ্যাচার করেছেন প্রাক্তন তারকা।
উল্লেখ্য, পাকিস্তানের হয়ে ৬১টি টেস্ট ম্যাচ খেলে ২৬১টি উইকেট নিয়েছেন লেগস্পিনার কানেরিয়া। দেশের জার্সিতে ১৯টি ওয়ানডে ম্যাচও খেলেছেন। বহু টেস্ট ম্যাচ হেলায় জিতিয়েছেন কানেরিয়া। কিন্তু গ্রেফ ধর্মের জন্য দলের মধ্যে কয়েকজন সতীর্থের কাছে ব্রাত্য ছিলেন। অনেকেই তার সঙ্গে এক টেবিলে বসে খেতে চাইতেন না। সম্প্রতি সতীর্থের পাশে দাঁড়িয়ে সেই বোমা ফাটিয়েছেন শোয়েব আখতার। তারপরই একের পর এক বিস্ফোরক অভিযোগ করে চলেছেন প্রাক্তন এই স্পিনার। কানেরিয়ার অভিযোগ, তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের মূলে ছিলেন আফ্রিদি।
খবর : সংবাদপ্রতিদিন’র।