অশুভ শক্তি বিনাশ হয়ে শুভ শক্তির অভ্যুদয় হোক

0
266

প্রতিমা নিরঞ্জন অনুষ্ঠানে মেয়র পদপ্রার্থী মো. রেজাউল করিম

কালুরঘাট ব্রিজ সংলগ্ন কণফুলী নদীর তীরে চান্দগাঁও থানা পূজা উদযাপন পরিষদের উদ্যোগে চট্টগ্রাম সিটি কপোরেশনের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় শুভ বিজয়া দশমীতে আজ সোমবার সন্ধ্যায় প্রতিমা নিরঞ্জন অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিমা নিরঞ্জন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ মনোনীত চসিক মেয়র পদপ্রার্থী মুক্তিযোদ্ধা মো.  রেজাউল করিম চৌধুরী।

এসময় রেজাউল করিম বলেন, বাঙালিরা বিভিন্ন ধর্ম ধারণ ও প্রতিপালন করলেও  আনন্দময় অনুভূতিগুলো আমরা একটি জাতি হিসেবে প্রকাশ করে থাকি। ধরাধামে যখন অসুরের উপদ্রব অসহনীয় পর্যায়ে পৌঁছেছিল তখন দেব, ব্রহ্মা, বিষ্ণু, শিব সকলে‌ পার্বতীকে নিজ নিজ শক্তি দিয়ে মহাশক্তি দূর্গা রূপে অসুর দমন ও দুর্গতি নাশ করতে পাঠিয়েছিলেন। তিনি অসুর বধ করে বিশ্ব ব্রহ্মান্ডে শান্তি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। আমাদের মানুষের মাঝেও অসুরদের আচরণ দেখা যায় কখনো কখনো। তারা জঙ্গিপনা, সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা হাঙ্গামা, খুন, রাহাজানি, ধর্ষণ ইত্যাদি কাজে লিপ্ত দেশকে অশান্ত করতে চায়, জনসমাজের শান্তি ও নিরাপত্তা বিনষ্ট করতে চায়। জাতির জনকের কন্যা, অসাম্প্রদায়িক চেতনায় ঋদ্ধ নারী, বাঙালিত্বের মূর্ত প্রতিক, আমাদের প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা কঠোর অবস্থান নিয়ে এ সকল অসুরদের একে একে দমন দমন করে চলেছেন।

তিনি আরো বলেন, দুর্গাপূজার মূল শিক্ষা হচ্ছে, নিজের বোধ শক্তিকে উন্নত করে সুন্দর সমাজ প্রতিষ্ঠায় আত্মনিয়োগ করা। এই পূজার মাধ্যমে আমরা নিজেদের সব অন্যায় কাজ থেকে দূরে থাকার শিক্ষাও পাই। দেবী দুর্গার আরাধনায় সকল অশুভ শক্তি বিনাশ হয়ে শুভ শক্তির অভ্যুদয় ঘটুক-এটাই হোক সবার প্রার্থনা।

চান্দগাঁও থানা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সমীরণ মল্লিকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সুমন নাথের সঞ্চালনায় সভায় বিশেষ অতিথর বক্তব্য রাখেন নঈম উদ্দিন খান, উপদেষ্টা কৃষ্ণপদ ঘোষ, সাবেক সাধারণ সম্পাদক সনজিব ভট্টাচার্য বাবু, সমীরণ দাশ। বক্তব্য রাখেন পংকজ চেধুরী, মিশু চৌধুরী, শিবু মজুমদার, সন্তোষ ঘোস প্রমুখ। বিজ্ঞপ্তি