সারা দেশে বইছে মাঝারি ধরণের শৈত্যপ্রবাহ

0
187

থাকবে কয়েকদিন

সুপ্রভাত ডেস্ক :

বাংলাদেশের বেশ বড় এলাকা জুড়ে মাঝারি ধরণের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। কুড়িগ্রামের রাজারহাটে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এই শৈত্যপ্রবাহ আরও কয়েকদিন ধরে চলবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশের আবহাওয়াবিদরা। খবর বিবিসি বাংলার।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ রুহুল কুদ্দুস জানিয়েছেন, ‘আগামী আরও দুই-একদিন এইরকম ঠাÐা আবহাওয়া থাকবে। এরপর থেকে আবার বাড়তে শুরু করবে।’

কুড়িগ্রামে তাপমাত্রা অনেক কমলেও গতকাল ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৩.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঠাÐার সঙ্গে রয়েছে কনকনে হাওয়া।

আবহাওয়াবিদ রুহুল কুদ্দুস জানিয়েছেন, দেশের মধ্যাঞ্চলের বেশ কয়েকটি জেলার ওপর দিয়ে মাঝারি ধরণের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। এসব জেলার মধ্যে রয়েছে টাঙ্গাইল, ফরিদপুর, শ্রীমঙ্গল, যশোর, কুষ্টিয়া, বরিশাল, ভোলা, রংপুর, রাজশাহী ও ময়মনসিংহ বিভাগের বেশ কিছু জেলা। এসব জেলায় তাপমাত্রা আট থেকে নয়ের মধ্যে ওঠানামা করছে।

তাপমাত্রা ১০-৮ ডিগ্রী সেলসিয়াস থাকলে সেটিকে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ, ৮-৬ এর মধ্যে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ এবং ৬ এর নীচে থাকলে তাকে তীব্র শৈত্যপ্রবাহ হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

তবে মি. কুদ্দুস জানিয়েছেন, আপাতত এই শৈত্যপ্রবাহ তেমন তীব্র হওয়ার আশঙ্কা নেই। তবে চলতি মাসেই আরেকটি শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

বাংলাদেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ২০১৮ সালের আটই জানুয়ারি দেশের সবচেয়ে উত্তরে পঞ্চগড়ের তেতুলিয়াতে। সেদিন তেতুলিয়াতে আজ ২ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়।

এর আগে তাপমাত্রার রেকর্ড রাখা শুরু করার পর বাংলাদেশে সবচেয়ে কম তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল ১৯৬৮ সালের ৪ঠা ফেব্রæয়ারি শ্রীমঙ্গলে ২.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস।