বঙ্গবন্ধু বিশে^র নিপীড়িত মানুষের মুক্তির পথ প্রদর্শক

0
97

বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত

যথাযোগ্য মর্যাদায় গতকাল জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে বিভিন্ন সংগঠন আয়োজিত আলোচনা সভায় বক্তারা বলেছেন , বঙ্গবন্ধু শুধু বাঙালি জাতির নয়; বিশে^র নিপীড়িত-নির্যাতিত গণমানুষের মুক্তির পথ প্রদর্শক।
মহানগর আওয়ামী লীগ
মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী বলেছেন, ১০ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু স্বদেশে প্রত্যাবর্তন করায় স্বাধীনতার স্বপ্নসাধ পূরণ হয়েছিল।
তিনি গতকাল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে সকাল ১১টায় থিয়েটার ইনস্টিটিউট হলে আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন।
মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক সিটি মেয়র আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বলেন, ইতিহাসের শুদ্ধ পাঠের অভাবে ইতিহাস বিকৃতি হচ্ছে। আমাদের মনে রাখতে হবে একটি শক্তিশালী প্রতিপক্ষ দাঁড়িয়ে আছে।
তারা এখনো ষড়যন্ত্র করছে, এবং ভবিষ্যতেও করবে। তাই ২৭ জানুয়ারি আমাদের অগ্নিপরীক্ষা।
চট্টগ্রামবাসীকে প্রমাণ করতে হবে ২৭ জানুয়ারির নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের বিজয়ের মাধ্যমে চট্টগ্রামের উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে হবে।
মহানগর আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক শফিকুল ইসলাম ফারুকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন মহানগর আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য সম্পাদক মাহবুবুল হক মিয়া, হারুন অর রশিদ, কাজী আলতাফ হোসেন, আবুল হাশেম বাবুল, মো. আবছার উদ্দিন চৌধুরী, কাজী রাশেদ আলী জাহাঙ্গীর, মো. ইসকান্দর মিয়া, মো. সেলিম রেজা, মো. নুরুল আলম, শেখ সরওয়ার্দী, হাজী আবু তৈয়ব ছিদ্দিকী, ইফতেখারুল আলম জাহেদ।
সভায় উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নঈম উদ্দিন চৌধুরী, অ্যাডভোকেট ড. সুনীল কুমার সরকার, ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুল, সম্পাদকম-লীর সদস্য নোমান আল মাহমুদ, শফিক আদনান, চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, চন্দন ধর, মশিউর রহমান চৌধুরী, হাজী মো. হোসেন, জালাল উদ্দিন ইকবাল, আবদুল আহাদ, আবু তাহের, ডা. ফয়সাল ইকবাল চৌধুরী, শহিদুল আলম, নির্বাহী সদস্য সাইফুদ্দিন খালেদ বাহার, মহব্বত আলী খান, আবদুল লতিফ টিপু, হাজী বেলাল আহমেদ, হাজী ছিদ্দিক আলম, অধ্যক্ষ আসলাম হোসেন, আবদুল হালিম, রেজাউল করিম কায়সার, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের আতিকুর রহমান, আবুল কাশেম, সৈয়দ মো. জাকারিয়া, মো. জামাল উদ্দিন, আবদুস শুক্কুর ফারুকী, আবদুর রহিম, দিদারুল আলম মাসুম, মিথুন বড়–য়া, মো. নাজিম উদ্দিন চৌধুরী, মো. মোরশেদ আলী, মো. জসিম উদ্দিন, লুৎফুল হক খুশি প্রমুখ।
দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ
বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের আলোচনা সভায় দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান বলেন, ১৯৭২ সালের ১০ জানুয়ারি প্রমাণিত হয়েছিল বঙ্গবন্ধুই ছিলেন জাতির ঐক্যের প্রতীক। এ দিনটি জাতিকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য চিরকাল প্রেরণা যোগাবে। তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন জাতির জন্য ছিল একটি বড় প্রেরণা। প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে কাজ করে যাচ্ছেন।
তিনি বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে বঙ্গবন্ধুর কর্মময় জীবন ও রাজনীতি থেকে শিক্ষা নিয়ে দলের সর্বস্তরে দৃঢ় ঐক্য গড়ে তোলার আহ্বান জানান।
দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে এ আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সহ-সভাপতি মোতাহেরুল ইসলাম চৌধুরী। সংগঠনের আন্দকিল্লার কার্যালয়ে সকাল ১১টায় এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।
সভায় বক্তব্য রাখেন দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, সহ-সভাপতি মোহাম্মদ ইদ্রিস, আবুল কালাম চৌধুরী, আইন সম্পাদক অ্যাডভোকেট মির্জা কছির উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট জহির উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রদীপ দাশ, শ্রম সম্পাদক খোরশেদ আলম, আবু জাফর, বোরহান উদ্দিন এমরান, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. তিমির বরণ চৌধুরী, আবদুল কাদের সুজন, চেয়ারম্যান নাছির আহমদ, দেবব্রত দাশ, ছিদ্দিক আহমদ বি.কম, মাহবুবুর রহমান সিবলী, অধ্যাপক আবদুল গফুর, দক্ষিণ জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শামীমা হারুন লুবনা, দক্ষিণ জেলা কৃষক লীগ সভাপতি আতিকুর রহমান চৌধুরী, ববিতা বড়–য়া, খালেদা আক্তার চৌধুরী, এস এম বোরহান উদ্দিন প্রমুখ।
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে ১০ জানুয়ারি সকাল সাড়ে নয়টায় চবি বঙ্গবন্ধু চত্বরে বিশ^বিদ্যালয় পরিবারের সকলকে সাথে নিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুস্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন চট্টগ্রাম বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার।
এ সময় চবি সিনেট ও সিন্ডিকেট সদস্য, অনুষদের ডিন, শিক্ষক সমিতির নেতৃবৃন্দ, রেজিস্ট্রার, কলেজ পরিদর্শক, হলের প্রভোস্টবৃন্দ, বিভাগীয় সভাপতি, ইনস্টিটিউট ও গবেষণা কেন্দ্রের পরিচালক, শিক্ষক, প্রক্টর ও সহকারী প্রক্টর, অফিস প্রধান, বঙ্গবন্ধু পরিষদের নেতৃবৃন্দ, অফিসার সমিতি, কর্মচারী সমিতি ও কর্মচারী ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ, শিক্ষার্থীবৃন্দ, বিশ^বিদ্যালয় পরিবারের সদস্য এবং সুধীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। এরপর বঙ্গবন্ধু পরিষদ, চবি’র উদ্যোগে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হয়।
উপাচার্য তাঁর ভাষণে বলেন, বঙ্গবন্ধু শুধু বাঙালি জাতির জন্য নয়; বিশে^র নিপীড়িত-নির্যাতিত গণমানুষের মুক্তির পথ প্রদর্শক। যাঁর জন্ম না হলে বাঙালি জাতি কোনদিনই স্বাধীনতা অর্জন করতে পারতো না।
চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়
যথাযোগ্য মর্যাদায় গতকাল চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ে (সিভাসু) জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে।
দিবসটি উপলক্ষে সকাল সাড়ে ১১টায় বিশ^বিদ্যালয় ক্যাম্পাসে স্থাপিত বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করেন উপাচার্য প্রফেসর ড. গৌতম বুদ্ধ দাশ। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ফিশারিজ অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. এম. নূরুল আবছার খান, ভেটেরিনারি মেডিসিন অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. আবদুল আহাদ, ইনস্টিটিউশনাল কোয়ালিটি এসিউরেন্স সেল-এর পরিচালক প্রফেসর ড. মো. কবিরুল ইসলাম খান, প্রক্টর প্রফেসর গৌতম কুমার দেবনাথ, পরিচালক (ছাত্রকল্যাণ) প্রফেসর ড. মোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন, শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রফেসর ড. মো. মনিরুল ইসলাম ও ড. সুচন্দন সিকদার। বিজ্ঞপ্তি