প্রযুক্তিতে বাংলাদেশ সক্ষমতা অর্জন করেছে : হোসনে আরা

0
121

‘বাংলাদেশ এখন ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার পথে এগিয়ে যাচ্ছে। চুয়েটে নির্মাণাধীন শেখ কামাল আইটি বিজনেস ইনকিউবেটর দেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতকে একধাপ এগিয়ে নেবে। পৃথিবীর অনেক দেশের তুলনায় প্রযুক্তিতে বাংলাদেশ সক্ষমতা অর্জন করেছে।’
গতকাল বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট) কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের উদ্যোগে দুই দিনব্যাপী ‘বিগ ডাটা ও মেশিন লার্নিং’ বিয়য়ক কর্মশালার সমাপনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হোসনে আরা বেগম এসব কথা বলেন।
অনুষ্ঠানে গেস্ট অব অনার ছিলেন চুয়েটের ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ রফিকুল আলম।
চুয়েট ভিসি তার বক্তব্যে বলেন, চতুর্থ শিল্পবিপ্লব বিশ্বব্যাপী আমূল পরিবর্তন ঘটিয়ে চলেছে। প্রধানমন্ত্রী তাই বারবার দেশের জনগণকে নতুন প্রযুক্তি ও উদ্ভাবনের সাথে খাপ-খাইয়ে নিয়ে দক্ষ হিসেবে গড়ে তোলার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন।
তিনি বলেন, সরকার ইতিমধ্যে তথ্যপ্রযুক্তি খাতে সক্ষমতা ও দক্ষতা বাড়াতে নানা পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে গবেষণা ক্ষেত্র নিয়ে নতুন করে ভাবতে হবে। প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে উচ্চশিক্ষা ও গবেষণায় বৈশ্বিক কোলাবোরেশন উন্নত করতে হবে।
কর্মশালার অরগানাইজিং চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ সামসুল আরেফিনের সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন চুয়েটে নির্মাণাধীন শেখ কামাল আইটি বিজনেস ইনকিউবেটরের প্রকল্প পরিচালক সৈয়দ জহুরুল ইসলাম, কর্মশালার উপদেষ্টা কমিটির চেয়ারম্যান ও চুয়েটের কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. আসাদুজ্জামান, আইইইই কম্পিউটার সোসাইটি বাংলাদেশ চ্যাপ্টারের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. এম শামীম কায়সার, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের এলআইসিটি’র ইমার্জিং টেকনোলজি স্পেশালিস্ট জহিরুল আলম তায়েমুন, কর্মশালার স্টুডেন্টস রিসার্চ শেয়ারিং সেশনের চেয়ার ড. ইকবাল এইচ সরকার।
অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন কর্মশালার অরগানাইজিং সেক্রেটারি ও সিএসই বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. আবু হাসনাত মোহাম্মদ আশফাক হাবীব। বিজ্ঞপ্তি