ঝরে পড়া শিশুদের শিক্ষার সাথে সম্পৃক্ত রাখার তাগিদ

0
81

অবহিতকরণ কর্মশালা

চট্টগ্রামের নবাগত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মমিনুর রহমান বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিক্ষার মানোন্নয়নসহ দেশের সামগ্রিক উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। জিডিপি বৃদ্ধিতে বিশ্বে বাংলাদেশের অবস্থান দ্বিতীয়। অর্থনীতির চাকা সচল থাকায় উন্নয়ন সূচকগুলোতে দৃশ্যনীয়। একটি দেশ কাক্সিক্ষত লক্ষ্যে পৌঁছতে গেলে কেউ নিরক্ষর থাকতে পারবেনা। এজন্য এখন থেকে সুষ্ঠু জরিপের মাধ্যমে সমাজের সুবিধাবঞ্চিত ও ঝরে পড়া নিরক্ষর শিশুদের শিক্ষার সাথে সম্পৃক্ত রাখতে সরকারের পাশাপাশি বিভিন্ন বেসরকারি সংস্থাকে সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে। তাহলে সরকারের ভিশন ২০২১ বাস্তবায়ন, ২০৩০ সালে এসডিজি অর্জন ও ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত-সমৃদ্ধশালী রাষ্ট্র বিনির্মাণ সম্ভব হবে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১১টায় চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত ‘আউট অব স্কুল চিলড্রেন’ শিক্ষা কর্মসূচি বাস্তবায়ন বিষয়ক অবহিতকরণ কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
জেলা প্রশাসন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের সহযোগিতায় চট্টগ্রাম উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা ব্যুরো এ কর্মশালার আয়োজন করেন।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) আ.স.ম জামশেদ খোন্দকারের সভাপতিত্বে ও প্রকল্পের রাঙ্গুনিয়া উপজেলা প্রোগ্রাম অফিসার মর্জিনা বেগমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত কর্মশালায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা ব্যুরোর সহকারী পরিচালক জুলফিকার আমিন।
বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সাব্বির ইকবাল ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মদ মজিবুর রহমান।
কর্মশালায় মাল্টিমিডিয়ার মাধ্যমে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের জেলা প্রোগ্রাম ম্যানেজার এম.কামরুল ইসলাম।
বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার হৃষিকেশ শীল, জেলা শিক্ষা অফিসার এস.এম জিয়াউল হায়দার হেনরী, জেলা ক্রীড়া অফিসার মনোরঞ্জন দে, কোতোয়ালী থানা শিক্ষা অফিসার মির্জা নুরুন্নাহার, সাংবাদিক রনজিত কুমার শীল, সমাজসেবা অধিদপ্তরের প্রবেশন অফিসার পারুমা বেগম, ইয়াসমিন পারভীন, উৎপল বড়–য়া, রিংকু কুমার শর্মা, মো. আলমগীর প্রমূখ। প্রকল্পটির বাস্তবায়ন সহযোগী প্রতিষ্ঠানসমূহের মধ্যে রয়েছে নেতৃত্বদানকারী সংস্থা ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশন, সহযোগী-যুগান্তর সমাজ উন্নয়ন সংস্থা, অপকা, ব্রাইট বাংলাদেশ ফোরাম, সততা, জাগোনারী, ক্যাপ, রুপা ও জিকেকে। কর্মশালায় বিভিন্ন এনজিও সংস্থার প্রতিনিধিরা অংশ নেন। বিজ্ঞপ্তি