এইডস প্রতিরোধে সচেতনতার তাগিদ

0
76

আলোচনা সভা

চট্টগ্রাম জেলা সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি বলেছেন, এইচআইভি একটি ভাইরাস যা শুধু মানুষের শরীরে সংক্রমিত হয়। এইডস ও এইচআইভি সৃষ্ট কতগুলো রোগের লক্ষণ এবং এটা মানুষ থেকে মানুষে সংক্রমিত হয়। এ রোগে আক্রান্ত হয়ে সারাদেশে অনেক লোক মারা যাচ্ছে। হেপাটাইটিস বি যেভাবে ছড়ায়, এইডস ও সেভাবে ছড়ায়। ইনজেকশনের মাধ্যমে শরীরে ড্রাগ নিলে বা যৌনকর্মীদের পেছনে ছুটলে এ রোগ মারাত্মকভাবে ছড়ায়। কারো শরীরে এইচআইভি ভাইরাস আছে কিনা তা একমাত্র রক্ত পরীক্ষার মাধ্যমেই জানা সম্ভব। জনগণের সক্রিয় অংশগ্রহণ ছাড়া এইডস নির্মূল করা সম্ভব নয়। এটি প্রতিরোধে সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থাগুলোকে আরো আন্তরিকভাবে কাজ করতে হবে। এইডস প্রতিরোধে পাড়া-মহল্লাসহ সর্বত্র ব্যাপক প্রচার-প্রচারণা অব্যাহত রেখে জনগণকে সচেতন করতে হবে। আমরা এইডসমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে চাই। গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১১টায় সিভিল সার্জন কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত বিশ্ব এইডস দিবস-২০২০ এর আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
দিবসটির এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে ‘সারা বিশ্বের ঐক্য, এইডস প্রতিরোধে সবাই নিব দায়িত্ব’।
তিনি বলেন, বর্তমান সরকারের আন্তরিকতায় জেলা ও মহানগর পর্যায়ে টিবি রোগের পাশাপাশি সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এইডস রোগীদের চিকিৎসা সেবা মিলছে। চট্টগ্রাম সদর হাসপাতালেও (জেনারেল হাসপাতাল) এ রোগের সুচিকিৎসা রয়েছে। ধর্মীয় অনুশাসন ও নিয়ম মেনে না চললে এইডস হবেই। উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে এইডস রোগের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে সরকার পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। এইডস নিয়ন্ত্রণে থাকলে সুস্থ ও সুন্দর জাতি গঠন সম্ভব।
চট্টগ্রাম জেলার ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. আসিফ খানের সভাপতিত্বে ও জেলা স্বাস্থ্য তত্বাবধায়ক সুজন বড়–য়ার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আলী আহসান, সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মেডিক্যাল অফিসার (রোগ নিয়ন্ত্রণ) ডা. মো. নুরুল হায়দার ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এসআইএমও ডা. মোহাম্মদ জাহিদ। বক্তব্য রাখেন ইপসার প্রোগ্রাম ম্যানেজার ফারহানা ইদ্রিছ, এফপিএবি’র জেলা কর্মকর্তা মো. কামরুজ্জামান উজ্বল ও এইচআইভি নেটওয়ার্কের প্রতিনিধি নুরুল হাশেম।
সভায় সিভিল সার্জনের কার্যালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সহযোগী উন্নয়ন সংস্থা সমূহের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা সভার পূর্বে সকাল সাড়ে ১০টায় সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। বিজ্ঞপ্তি