আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নিলেন আমির

0
138

সুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক :
আকস্মিকভাবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিলেন পাক ক্রিকেট তারকা মুহাম্মদ আমির। বৃহস্পতিবার একথা ঘোষণা করতে গিয়ে ২৮ বছরের বাঁহাতি পেসার কাঠগড়ায় তুললেন পাক ক্রিকেট বোর্ডকে। জানিয়ে দিলেন বর্তমান টিম ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে কাজ করা তার পক্ষে আর সম্ভব হচ্ছে না। তার এমন ঘোষণায় রীতিমতো হতবাক ক্রিকেট দুনিয়া।
এক ভিডিওয় আমির তার ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন। সেখানে তাকে বলতে শোনা যাচ্ছে, ‘সত্যি বলছি, এই ম্যানেজমেন্টের অধীনে আমার পক্ষে আর খেলা সম্ভব নয়। তাই এখনকার মতো ক্রিকেট থেকে সরে যাচ্ছি। আমার উপরে মানসিক অত্যাচার করা হয়েছে।’ তবে অভিযোগের মধ্যেই তিনি ধন্যবাদ জানান শাহিদ আফ্রিদিকে, তিনি নির্বাসন পর্ব শেষ হতেই আমিরকে দলে ফেরার সুযোগ করে দিয়েছিলেন বলে। ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। আমির জানিয়েছেন, দু’দিনের মধ্যে পাকিস্তানে ফিরে পরিবারের সঙ্গে কথা বলার পর তিনি তার অবসরের বিষয়ে সরকারিভাবে ঘোষণা করবেন।
গত বছরই টেস্ট ক্রিকেট থেকে অবসর নেন আমির। যে কারণে পাক বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল তাকে। সীমিত ওভারের দল থেকেও বাদ পড়ে যান। পাক বোর্ডের অভিযোগ ছিল, বিভিন্ন লিগে খেলার জন্যই টেস্ট ক্রিকেট ছেড়েছেন আমির। এপ্রসঙ্গে এদিন আমির বলেন, ‘দেশের হয়ে সকলেই খেলতে চায়। ওদের অভিযোগ ছিল, আমি টেস্ট ছেড়েছি সারা বিশ্ব ঘুরে লিগ খেলব বলে। আমি যদি লিগ খেলার জন্য এত উতলা থাকতাম তাহলে তো বলেই দিতে পারতাম, আর পাকিস্তানের হয়ে খেলব না। অথচ প্রতি মাসেই কেউ না কেউ বলে চলেছে, আমি আমাদের ঠকিয়েছে।’
২০০৯ সালে মাত্র ১৭ বছর বয়সে পাকিস্তানের হয়ে অভিষেক হয় আমিরের। সেবছরই লর্ডসে খেলার সময় গড়াপেটায় জড়িয়ে পড়ে পাঁচ বছরের জন্য নির্বাসিত হন তিনি। তবে নির্বাসনের পরে দারুণ ভাবে ফিরে আসেন আমির। কিন্তু অচিরেই ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে ক্রমাগত সম্পর্ক খারাপ হতে থাকে তার। দলেও জায়গা হচ্ছিল না। অবশেষে বাইশ গজকে বিদায় জানানোর সিদ্ধান্তই নিয়ে ফেললেন তিনি। খবর : সংবাদপ্রতিদিন’র।