চলে গেলেন কবি আহমেদ খালেদ কায়সার

0
53

নিজস্ব প্রতিবেদক :
চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সাবেক ব্যাংক কর্মকর্তা কবি আহমেদ খালেদ কায়সারের মৃত্যু হয়েছে। তিনি প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউসের বড় ভাই।
আজ শনিবার (৬ জুন) সকাল সোয়া ১১টার দিকে চমেক হাসপাতালের আইসিইউতে তার মৃত্যু হয় ।
চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানান, আহমেদ খালেদ কায়সার এক সপ্তাহ ধরে চিকিৎসাধীন ছিলেন উনার প্রেসার, ডায়াবেটিস ছিল। ফুসফুসেও সমস্যা ছিল। সেজন্য দুবার করোনা ভাইরাসের টেস্ট করানো হয়। কিন্তু দুবারই নেগেটিভ রেজাল্ট আসে। শুক্রবার রাতেও উনার শরীরে অক্সিজেনের লেভেল ঠিক ছিল। কিন্তু আজ (শনিবার) সকালে হঠাৎ অক্সিজেনের লেভেল ৪০-এর নিচে নেমে যায়। তখন আমরা তাড়াতাড়ি উনাকে আইসিইউতে নিয়ে যায়। সেখানেই উনার মৃত্যু হয়েছে।
কবি হিসেবে চট্টগ্রামে সমধিক পরিচিত ছিলেন আহমেদ খালেদ কায়সার। তার ছোট ভাই নাট্যজন আহমেদ ইকবাল হায়দার জানান, মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর। তিনি কৃষি ব্যাংকের সাবেক কর্মকর্তা ছিলেন। তারা ছয় ভাই ও এক বোন ছিলেন। এক ভাই ও বোন আগেই মারা যান। প্রয়াত কায়সারের এক মেয়ে আছে। ধর্মীয় আনুষ্ঠানিকতা শেষ করে গ্রামের বাড়ি পটিয়ার পারিবারিক কবরস্থানে আহমেদ খালেদ কায়সারের মরদেহ দাফন করা হয়।
এদিকে আহমদ খালেদ কায়সারের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখপ্রকাশ করেছেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।
তথ্যমন্ত্রী ও চট্টগ্রাম-৭ আসনের সংসদ সদস্য ড. হাছান মাহমুদ তার শোকবার্তায় দেশের সাহিত্য ও কাব্যচর্চায় প্রয়াত খালেদ কায়সারের ভূমিকার কথা স্মরণ করে মরহুমের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেন ও শোকাহত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।
মেয়র নাছিরের শোক
পৃথক বিবৃতিতে গভীর শোক জানিয়েছেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। এক শোক বার্তায় মেয়র মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।