করোনা উপসর্গ  নিয়ে হাটহাজারীতে আট ঘণ্টার ব্যবধানে দুই ভাইয়ের মৃত্যু

0
151
করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু হওয়া দুই ভাই

নিজস্ব প্রতিবেদক :
করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তারের সাথে সাথে মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে। হাটহাজারীতে করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে ৮ ঘণ্টার ব্যবধানে দুই ভাইয়ের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (৫ জুন) বিকালে ও দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হলেন, হাটহাজারী পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের পূর্ব দেওয়াননগরের মৃত গোলাম রসুলের পুত্র প্রবাসী মো. শাহ আলম (৩৫) ও তার ছোট ভাই কাপড় দোকানদার মো. শাহজাহান (৩০)।
জানা গেছে, শুক্রবার দুপুরের দিকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় একজনের মৃত্যু হয়। পরে রাত ১০ টার দিকে ছোট ভাই মারা যান।
গত মঙ্গলবার শাহ আলম ও তার ভাই শাহজান জ্বর, শ্বাস কষ্ট নিয়ে চমেক হাসপাতালে ভর্তি হন। ভর্তির পরই ৪৮ হাজার টাকায় দুটি ছোট অক্সিজেন সিলিন্ডার কেনেন স্বজনরা। অবস্থা গুরুতর হওয়ায় শুক্রবার সকালে কেনা ছোট অক্সিজেন দুটো ফেরত দিয়ে আরো ২২ হাজার টাকায় একটি বড় অক্সিজেন সিলিন্ডার কেনেন। পরে ৩টার দিকে একজনের মৃত্যুর পর রাত ১০টার দিকে দ্বিতীয় জনের মৃত্যু হয় বলে পরিবারের সদস্যারা জানিয়েছেন।
নিহতের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, শাহ আলম শ্বাস কষ্ট নিয়ে চমেক হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর আরো উন্নত চিকিৎসার জন্য বেসরকারি হাসপাতালে অনেক চেষ্টা করেও দুজনকে ভর্তি করাতে পারিনি। করোনা উপসর্গে নিয়ে মারা গেলেও এখনো রিপোর্ট পায়নি জানিয়ে বলে জানা গেছে।
হাটহাজারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবু সৈয়দ মোহাম্মদ ইমতিয়াজ হোসাইন শনিবার বিকালে সুপ্রভাতকে বলেন, মৃত্যু হওয়া দুই ভাই মেডিক্যালের জরুরি বিভাগে আসছিলো। কিন্তু তাদের শ্বাস কষ্ট থাকায় আমরা অক্সিজেন দিয়েছি। অবস্থা বেশি খারাপ হওয়ায় তাদেরকে চমেক হাসপাতালে পাঠানো হয়। তারা করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু বরণ করেছেন।
এদিকে হাটহাজারী উপজেলার ৩ নম্বর মির্জাপুর ইউনিয়নের মনছুরাবাদ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সুমন বড়–য়ারও করোনায় মৃত্যু হয়েছে। তবে তার ব্যাপারে বিস্তারিত জানা যায়নি।