ফটিকছড়িতে দুই স্কুল ছাত্রী ধর্ষণ মামলার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

0
234

নিজস্ব প্রতিনিধি, ফটিকছড়ি  :

উপজেলার ভূজপুরে দুই স্কুল ছাত্রীকে অপহরণ করে জঙ্গলে নিয়ে গণধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি হেলাল উদ্দিন ( ৩৫) পুলিশের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’  নিহত হয়েছেন।তবে এই সময় পুলিশের কেউ আহত হয়নি।

গত শনিবার (২৩ মে) রাত ২টার দিকে ভুজপুরের আন্ধারমানিক এলাকায় এই বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে নিহত হেলাল একই এলাকার জাফর আলমের ছেলে ।

এক সময় প্রবাসে থাকলেও বেশকিছু দিন আগে দেশে এসে বিভিন্ন অপরাধকর্ম চালাচ্ছে সে। তার বিরুদ্ধে ভূজপুর থানায় ডাকাতি মামলা রয়েছে।

ভূজপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ আব্দুল্লাহ জানান, শনিবার রাতে চাঞ্চল্যকর এই ধর্ষণ ঘটনার অভিযুক্তদের ধরতে থানা পুলিশের একটি দল আধারমানিকের গলাচিপা এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় আসামিরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালালে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। এসময় ঘটনাস্থলে প্রধান আসামি হেলাল গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যায়। ওসি বলেন, ঘটনাস্থল থেকে আরো ২অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়।

এসময় তাদের কাছ থেকে এলজি, ৪ টি গুলি ও বেশকিছু দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।তবে এসময় পুলিশের কেউ আহত হয়নি।

উল্লেখ্য, শনিবার সকালে উপজেলার ভূজপুরের কাজীরহাট থেকে ঈদের বাজার করে ফিরছিলেন ৭ম ও ৮ম শ্রেনিতে পড়ুয়া সম্পর্কে খালাতো বোন এই দুই শিক্ষার্থী। এসময় হেলালের নেতৃত্বে ৮ জনের একদল দুর্বৃত্ত তাদের জোর করে গাড়িতে করে তুলে নিয়ে আধারমানিক এলাকার একটি জঙ্গলে গণধর্ষণ করেন৷

পরে স্থানীয়রা পুলিশের সহায়তায় তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করেন।

এই ঘটনায় ভুক্তভোগী একজনের মা বাদি হয়ে ৮ জনের নাম উল্লেখসহ মোট ১৪ জনের নামে ভূজপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন