কাবুলে আবারও ভয়াবহ বিস্ফোরণ

নিহত অন্তত ২৫

সুপ্রভাত বহির্বিশ্ব ডেস্ক

আবারও বিস্ফোরণের শব্দে প্রকম্পিত হয়েছে আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুল। দেশটির সংবাদমাধ্যম টোলো নিউজ জানিয়েছে, বুধবার রাজধানীর পিডি৩ এলাকায় ওই বিস্ফোরণে অন্তত ২৫ জন নিহত ও ১৮ জন আহত হয়েছে। নিরাপত্তাকর্মীরা ঘটনাস’লে অবস’ান করছেন। হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। ঘটনাস’ল থেকে টোলোনিউজের সাংবাদিক জানিয়েছেন হতাহত অনেকেই ঘটনাস’লে পড়ে আছে ধারণা করা হচ্ছে সেখানে গাড়িবোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। খবর বাংলাট্রিবিউন।
বুধবার দিনের মধ্যভাগে আলী আবাদ হাসপাতাল ও কাবুল বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন এলাকায় এই বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। টোলোনিউজের সাংবাদিক জাওয়ায়িদ জিয়ারাতজায়ি জানিয়েছেন, ওই এলাকা ঘিরে ফেলেছে নিরাপত্তাকর্মীরা।
এক প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে ব্রিটিশ বার্তা সংস’া রয়টার্স জানিয়েছে, পারস্য বর্ষপূতি নওরোজ উদযাপনের ছুটি শুরু হওয়ার দিনে এই বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে।
চলতি বছরের জানুয়ারিতে বেশ কয়েক দফায় হামলার লক্ষ্যবস’ হয় কাবুল। একটি বিলাসবহুল হোটেলে হামলায় বিদেশিসহ অন্তত ২২ জন নিহত হওয়ার পর কাবুল জুড়ে উচ্চ সতর্কতা জারি করা হয়। ওই সতর্কতার মধ্যেই শহরের সিটি সেন্টারের কাছে শক্তিশালী গাড়ি বোমা হামলা চালায় তালেবান গোষ্ঠী। দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী বিস্ফোরক বোঝাই অ্যাম্বুলেন্সে করে চালানো ওই হামলায় নিহতের সংখ্যা কমপক্ষে ১০৩ জনে পৌঁছে। এর দুই দিনের মাথায় কাবুলের মিলিটারি একাডেমিতে জঙ্গিদের সঙ্গে কয়েক ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষ হয়। আফগানিস্তানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্রকে উদ্ধৃত করে হামলায় অন্তত ১১ জন সেনা সদস্য নিহত এবং ১৬ জন আহত হওয়ার কথা জানায় কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা। এছাড়া পাঁচ হামলাকারীর মধ্যে চারজন নিহত হয়। কথিত আমাক নিউজ এজেন্সির বরাতে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম জানায়, মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস) এই হামলার দায় স্বীকার করেছে।
গত মাসে কাবুলে অনুষ্ঠিত হয় এক শান্তি সম্মেলন। ওই সম্মেলন থেকে তালেবানের সঙ্গে আলোচনার আগ্রহ দেখায় আফগান সরকার। তবে তালেবানরা সরাসরি সেখানে অবস’ানরত মার্কিন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছে। এসব পাল্টাপাল্টি প্রস্তাবের মধ্যে বিভিন্ন সময়ে তালেবানের সঙ্গে আলোচনার খবর এসেছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে।