শাকিব কলকাতার সেটে অপু নিকেতন

বিনোদন প্রতিবেদক
shakib-apu002

ঢাকাই চলচ্চিত্রের অন্যতম সফল জুটির বিয়ে বিচ্ছেদ হয়ে গেল। ভক্তদের নানা উৎকণ্ঠা পাশ কাটিয়ে যখন এটি সত্যি হলো তখন দুজনই যে যার কাজে ব্যস্ত। এ মুহূর্তে শাকিব খান আছেন কলকাতায়। সেখানে জয়দীপ মুখার্জি পরিচালিত তার নতুন ছবি ‘ভাইজান এলো রে’ শুটিংয়ে ব্যস্ত তিনি। অন্যদিকে অপু এখন আছেন ঢাকায়, নিকেতনের নিজ বাসায়। সেখানেই সন্তান আব্রাম খান জয়কে নিয়ে তার সংসার।
বিয়ে বিচ্ছেদের বিষয়ে প্রথম থেকেই শাকিব মুখ বন্ধ করে রেখেছেন। ‘হ্যাঁ, না’ কোনও উত্তরও দিতে নারাজ তিনি। আর ১২ মার্চ বিচ্ছেদ কার্যকর হওয়ার অপুও পারতপক্ষে ফোন রিসিভ করছেন না। এসএমএসের মাধ্যমেই যোগাযোগ রক্ষা করছেন। এসএমএস মাধ্যমে ফোনের রিপ্লাই দিলেও বিচ্ছেদের বিষয়ে কোনও মন্তব্য করছেন না এই অভিনেত্রী।
কিছুদিন আগে অপু বলেছিলেন, ‘যা হওয়ার (বিচ্ছেদ) তাই হবে। নিজে ফিট হওয়ার চেষ্টা করছি। সিনেমা তো বটেই ব্যতিক্রমী ভালো কাজ হলে সেটিও আমি করব। যে কাজটি আমার সঙ্গে মানিয়ে যাবে এমন কিছু। সবকিছু গুছিয়ে নিচ্ছি আমি।’
সর্বশেষ ২০১৫ সালের শেষ দিকে বুলবুল বিশ্বাসের ‘রাজনীতি’ সিনেমায় শাকিবের সঙ্গে অভিনয় করেন অপু। এরপর চলতি বছর রফিক সিকদারের ‘ওপারে চন্দ্রাবতী’ ছবির মহরতে অংশ নিয়েছেন এ নায়িকা। এছাড়া চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন আরও কিছু ছবিতে।
উল্লেখ্য, গত বছরের ২২ নভেম্বর অপুকে বিয়ে বিচ্ছেদের চিঠি পাঠান শাকিব। তখন জানা যায়, তিন মাস পর কার্যকর হবে এই বিচ্ছেদ। সেই হিসাবে ২২ ফেব্রুয়ারি শাকিবের বিবাহ বিচ্ছেদের চিঠি পাঠানোর তিন মাস পূর্ণ হয়। কিন’ উত্তর সিটি করপোরেশন অঞ্চল ৩-এর নির্বাহী কর্মকর্তা হেমায়েত হোসেন পরবর্তী আরও একটি দিন তাদের সালিশ নির্ধারণ করেন। আজ সে সালিশে দুই পক্ষের কেউই উপসি’ত না থাকায় মুসলিম আইন অনুযায়ী তালাক কার্যকর হলো।
জানা যায়, তাদের একমাত্র ছেলে আব্রাম খান জয়ের জন্য খরচ বাবদ প্রতি মাসে অপুকে এক লাখ টাকা দিচ্ছেন শাকিব। এছাড়াও অপু বিশ্বাসকে বিয়ের দেনমোহর বাবদ সাত লাখ টাকা পরিশোধ করবেন এ চিত্রনায়ক।