‘স্বপ্নীল’ স্পেলের অপেক্ষায় তাসকিন

সুপ্রভাত ক্রীড়া ডেস্ক

মনে করুন, সিরিজের প্রথম টেস্টে জয়ের জন্য স্বাগতিক বাংলাদেশের দেয়া ২৫৭ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিং করছে সফরকারী অস্ট্রেলিয়া। টাইগারদের পেস তোপ ও স্পিন ঘূর্ণিতে দলীয় ১৫০ রান তুলতেই ৫ উইকেট হারিয়ে বসেছে স্টিভ স্মিথ ও তার দল। উইকেটে আছেন মিডল ও লোয়ার মিডল অর্ডারের দুই ব্যাটসম্যান। খবর বাংলানিউজ’র।
উইকেটের দুই প্রান্তে দু’জনই বেশ সন্তর্পনে ব্যাটিং করছেন। একজন অপরাজিত আছেন ব্যক্তিগত ৭০ রানে অপরজন ৪৫ কিংবা অর্ধশতকের কোঠা মাত্রই পার করেছেন। ম্যাচের ভাব দেখে মনে হচ্ছে এ দু’জনের ব্যাটেই জয়ের তিলক পড়বে সফরকারীরা। আর উইকেটের জন্য হাহাকার করছে স্বাগতিক শিবির।
ঠিক সেই মুহূর্তে দিনের দ্বিতীয় কিংবা হতে পারে তৃতীয় স্পেলে বল হাতে এলেন তাসকিন। এসেই প্রথম ওভারে ফিরিয়ে দিলেন ৭০ রানে অপরাজিত থাকা ব্যাটসম্যানকে। এরপর অন্য এক ওভারে ফেরালেন দ্বিতীয়জনকে। ১৫৪ রানে নেই অজিদের ৭ উইকেট! ব্যাস উল্লাসের মাতম দিক বদলে অজি গ্যালারি বদলে ফিরলো টাইগার গ্যালারিতে। বাকি তিন উইকেটের পতন হলো ১৯৯ রানের মধ্যে। ৫৮ রানে ম্যাচ জিতে ১-০ তে এগিয়ে থাকলো মুশফিকুর রহিম ও তার দল!
বিষয়টি কাল্পনিক হলেও দুই ম্যাচ সিরিজের টেস্ট খেলতে আসা সফরকারী অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ঠিক এমনই এক ম্যাচ উইনিং স্পেলের স্বপ্ন দেখছেন তাসকিন আহমেদ, ‘আমি সুযোগ পেলে একটা ম্যাচ উইনিং স্পেল করতে চাই।’
তাসকিনের কাছে ম্যাচ উইনিং স্পেল মানে দলের সকল বোলারের চেয়ে বেশি সংখ্যক উইকেট নেয়া নয়। এর ব্যাখ্যাটি তার কাছে এমন, ‘উইনিং স্পেল মানে পাঁচ-সাত উইকেট নেয়া নয়। বরং ভালো কিছু ওভার করা। দেখা গেলো স্পিনাররা পাঁচ-সাতটা উইকেট নিয়েছে। এর মাঝখানে দুইটা উইকেট নিয়ে নিলাম। যা দলের জন্য উপকারে আসবে। এমন কিছুই করতে চাই। পুরোনো বলে রিভার্স সুইংটা করতে চাই। এসব নিয়ে কাজ করছি আশা করি ভবিষ্যতে অনেক কাজে দেবে।’
সেরা একাদশে জায়গা পেলে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্ট ম্যাচের স্বাদ নেবেন তাসকিন। সন্দেহাতীতভাবে তাই দারুণ রোমাঞ্চিত। ক্ষেত্র বিশেষে তার এই রোমাঞ্চ ছুঁয়ে যাচ্ছে স্বপ্নকেও।
তাসকিন স্বপ্ন দেখছেন অজি অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নারের উইকেটটি নিজ থলিতে পুড়বেন, ‘আমার স্বপ্নের উইকেটে ওয়ার্নার- স্মিথ আছে।’
স্বপ্নকে বাস্তবে রূপে দিতে পারে মানুষের সংখ্যা এই পৃথিবীতে খুব বেশি নেই। যারা আছেন তারা মহামানব হয়েই আছেন। মিরপুরের
এই স্পিন ট্র্যাকে তাসকিন যদি তার স্পেল ও উইকেট স্বপ্নকে বাস্তবে রূপ দিতে পারেন তাহলে নিঃসন্দেহে এক উজ্জ্বল নক্ষত্র হয়ে এদেশের ক্রিকেটের আকাশে আলো ছড়িয়ে যাবেন।