সু চির বিশেষ দূত ঢাকায়

সুপ্রভাত ডেস্ক
kyaw-tin

মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সু চির বিশেষ দূত হিসেবে ঢাকায় এসেছেন দেশটির পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী উ চ থিন। রোহিঙ্গা ইস্যুতে মিয়ানমারের উপর আন্তর্জাতিক সমপ্রদায়ের চাপ বাড়ার মধ্যে গতকাল মঙ্গলবার ঢাকা এলেন তিনি।
উ চ থিন তিন সদস্যের প্রতিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। নভো এয়ারের একটি ফ্লাইটে ইয়াংগুন থেকে বিকালে ঢাকা আসেন তারা।
মিয়ানমারের এই প্রতিনিধি দল আজ বুধবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলী এবং পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শহীদুল হকের সঙ্গে বৈঠক করবেন বলে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা জানিয়েছেন।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা সোমবার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, ‘দ্বিপক্ষীয় ইস্যুতে আলোচনার জন্য তাকে (থিন) বিশেষ দূত হিসেবে পাঠাচ্ছে বলে আমাদের জানিয়েছে মিয়ানমার। আমরা অবশ্যই রোহিঙ্গা ইস্যুটি (আলোচনায়) তুলব।’
এর আগে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্য থেকে বাংলাদেশে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর অনুপ্রবেশের ঘটনা চলতে থাকায় উদ্বেগ প্রকাশ করে ঢাকা।
গত ৯ অক্টোবর মিয়ানমারের তিনটি সীমান্ত পোস্টে ‘বিচ্ছিন্নতাবাদীদের’ হামলায় নয় সীমান্ত পুলিশ নিহত হওয়ার পর রাখাইন রাজ্যের রোহিঙ্গা অধ্যুষিত জেলাগুলোতে সেনা অভিযান শুরু হয়। এরপর বাংলাদেশে রোহিঙ্গ অনুপ্রবেশের ঘটনা বেড়ে যায়। ওইদিন থেকে এ পর্যন্ত প্রায় ৫০ হাজার রোহিঙ্গা বাংলাদেশে ঢুকেছে বলে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য।
এর আগে কয়েক যুগ ধরে ৫ লাখের বেশি রোহিঙ্গার ভার বহন করছে বাংলাদেশ। বারবার বলা সত্ত্বেও মিয়ানমার সরকার তাদের দেশের এই মুসলিম জনগোষ্ঠীকে ফেরত নিতে কোনো আগ্রহ দেখাচ্ছে না।
সর্বশেষ গত ২৯ ডিসেম্বর ঢাকায় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূূত মায়ো মিন্ট থানকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে উদ্যোগী হওয়ার তাগাদা দেওয়া হয়।
আগামী ১৯ জানুয়ারি মালয়েশিয়ায় অনুষ্ঠেয় ওআইসির পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠকে বিষয়টি বাংলাদেশের তোলার কথা রয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন