সিলিন্ডার বিস্ফোরণ দম্পতি নিহত

নিজস্ব প্রতিবেদক, কক্সবাজার ও মহেশখালী প্রতিনিধি

কক্সবাজারের মহেশখালীতে চলমান আদিনাথ মেলায় বেলুনের গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে দু’জনের মৃত্যু হয়েছে। এঘটনায় আহত হয়েছেন আরো ৩ জন। বুধবার বেলা সাড়ে ১০টার দিকে লোকনাথ মন্দিরের পার্শ্বস্ত মেলা প্রাঙ্গণে এ ঘটনা ঘটে।
নিহতরা হলেন, ফেনী জেলার মমতা রাণী বণিক (৩৬) ও তার স্বামী গণেশ বণিক (৪৩)। নিহতরা বেলুন ব্যবসায়ী। সম্পর্কে স্বামী-স্ত্রী। আহতদের কক্সবাজার সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। মহেশখালী থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে ওসি প্রদীপ কুমার দাশ জানিয়েছেন, গত মঙ্গলবার সন্ধ্যা থেকে শুরু হওয়া আদিনাথ মন্দিরে শীব দর্শন পূজা উপলক্ষে সপ্তাহব্যাপী মেলা চলছে। আদিনাথ পাহাড়ের পাদদেশ এলাকাজুড়ে পণ্যের পসরা সাজিয়ে বসেছিল শতাধিক দোকানপাট।
সেই সাথে ছিল কিছু খাবারের দোকানও। এর মাঝে বেলুন ফুলিয়ে বিক্রির একটি দোকান দেন এক দম্পতি। তারা পরিমল ধর নামের ঁ ২য় পৃষ্ঠার ১ম কলাম
এক মিষ্টি ব্যবসায়ীর দোকানের পাশে গ্যাস ভর্তি সিলিন্ডার নিয়ে বেলুন ফুলিয়ে বিক্রি করছিলেন। বেলা সাড়ে ১০টার দিকে হঠাৎ সিলিন্ডারটি বিস্ফোরণ ঘটে। এতে আঘাত পেয়ে ঘটনাস’লেই মারা যান স্বামী-স্ত্রী। তাদের দেহ ছিন্নভিন্ন হয়ে যায়। এই ঘটনায় সাতকানিয়া ও মহেশখালী এলাকার আরও ৩ জন আহত হয়। এদিকে সিলিন্ডার বিস্ফোরণের বিকট শব্দে আদিনাথ মন্দিরে আসা পূজার্থীরা ভয়ে দিকবিদিক ছুটতে থাকে। এ সময় পরিমল নামের মিষ্টির দোকানদারের স্ত্রী অঞ্জলি রাণী দে, ইদুল দে ও নীরব পাল নামে এক শিশু আহত হয়। আহতদের দ্রুত মহেশখালী হাসপাতালে নিয়ে আসে স’ানীয়রা। আহত ও নিহত সকলেই হিন্দু সমপ্রদায়ের লোক বলে জানা গেছে। আহতদের একজন সাতকানিয়া উপজেলার রামপুর গ্রামের রতন দাশের পুত্র, অপর দুজন মহেশখালী পৌরসভার দক্ষিণ হিন্দুপাড়া ও আদিনাথ ঠাকুরতলার বাসিন্দা বলে জানা গেছে। বিস্ফোরণের খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক ঘটনাস’ল পরিদর্শন করেন মহেশখালী থানার অফিসার ইন-চার্জ প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, বিস্ফোরণে নিহত বেলুন বিক্রেতা স্বামী-স্ত্রী দুজনেই প্রাথমিক ভাবে হিন্দু ধর্মীয় লোক বলে সনাক্ত করা হলেও নিহত মহিলার শরীর ও মুখমণ্ডলের কিছু অংশ দেখা গেলেও নিহত পুরুষের শরীর ছিন্নভিন্ন হয়ে যায়। পুলিশ ঘটনাস’ল থেকে নিহতদের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেন। এ ঘটনায় পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রামু এলাকার পরিমল নামের এক মিষ্টির দোকানদারকে আটক করেছে। নিহত বেলুন ব্যবসায়ী স্বামী-স্ত্রী এবং তাদের বয়স আনুমানিক যথাক্রমে ৫৫ ও ৪৫ বলে বলে ধারণা করা হচ্ছে।
আর আহত হন পরিমলসহ তার পরিবারের মানুষও। তিনি আরো জানান, নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। আহতদেরও চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
স’ানীয়রা জানান, গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণের পর মেলা এলাকায় স’বিরতা নেমে আসে।
আদিনাথ মেলা পর্যবেক্ষণ কমিটির সভাপতি ও মহেশখালী উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা মো. আবুল কালাম জানান, সিলিন্ডার বিস্ফোরণের কারণ অনুসন্ধান করা হচ্ছে। মেলা নির্বিঘ্ন করতে প্রশাসনিক নজরদারি বাড়ানো হয়েছে।