ডুলাহাজারায় বিদ্যালয়ের ভবন নির্মাণকাজের উদ্বোধনে এমপি জাফর

সরকার শিড়্গার যথাযথ পরিবেশ নিশ্চিত করেছে

নিজস্ব প্রতিনিধি, চকরিয়া

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অগ্রাধিকার প্রকল্পের আওতায় সারাদেশে চলমান শিড়্গাখাতের অগ্রগতির অংশ হিসেবে গত বৃহস্পতিবার কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের রিংভং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবন নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপসি’ত থেকে ভিত্তিপ্রসত্মর স’াপন করেন চকরিয়া-পেকুয়া (কক্সবাজার-১) আসনের সংসদ সদস্য ও চকরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ জাফর আলম। প্রাথমিক শিড়্গা বিভাগের অর্থায়নে ৯৮ লাখ টাকা বরাদ্দে ডুলাহাজারা রিংভং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণ কাজের তদারকি করবেন স’ানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি)। এরআগে সকালে চকরিয়া উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত মাসিক আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন এমপি আলহাজ জাফর আলম। চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুরম্নদ্দিন মুহাম্মদ শিবলী নোমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা সহকারী কমিশনার ভুমি খোন্দকার ইখতেয়ার উদ্দিন আরাফাত, কক্সবাজার জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ও চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামী লীগের সভাপতি জাহেদুল ইসলাম লিটু, চকরিয়া থানার ওসি তদনত্ম মো.আতিক উলস্নাহ, উপজেলা রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির টিম লিডার মো.নুরম্নল আবছার, বিআরডিবির সাবেক চেয়ারম্যান আলহাজ সেলিম উলস্নাহ। অনুষ্ঠানে সকল ইউপি চেয়ারম্যান, শিড়্গাপ্রতিষ্ঠানের প্রধান, প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা ও সুধীজন উপসি’ত ছিলেন।অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন চকরিয়া উপজেলা প্রাথমিক শিড়্গা কর্মকর্তা গুলশান আক্তার, এলজিইডির চকরিয়া উপজেলা প্রকৌশলী কমল কানিত্ম পাল, রিংভং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কমিটির সভাপতি ছরওয়ার আলম, উপজেলা ঠিকাদার সমিতির সভাপতি আলহাজ শফিকুল কাদের প্রমুখ। এছাড়াও অনুষ্ঠানে বিদ্যালয়ের সকল শিড়্গক, অভিভাবক, শিড়্গার্থী ও সুধিজন উপসি’ত ছিলেন।উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি আলহাজ জাফর আলম এমপি বলেছেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিড়্গাখাতের অগ্রউন্নয়নে পরিকল্পিতভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।
নতুন প্রজন্মের শিড়্গার্থীদের জন্য মেধানির্ভর শিড়্গার সম্ভাবনার দ্বার উম্মোচন করেছে। তাঁর সদিচ্ছার কারনে আজ শিড়্গার্থীরা বিনা বেতনে লেখাপড়ার সুযোগ পাচ্ছে। হাজার কোটি টাকা বরাদ্দে অবকাঠামোগত উন্নয়নে সবধরনের কর্মকান্ড বাসত্মবায়ন করছেন। জাফর আলম এমপি আরও বলেন, সরকার শিড়্গার যথাযথপরিবেশ নিশ্চিত করেছে।শিড়্গার্থীদের লেখাপড়ার মান্নোয়ন নিশ্চিতকল্পে আগামী পাঁচবছরে টেকসই উন্নয়নে চকরিয়া-পেকুয়া উপজেলার সবশিড়্গা প্রতিষ্ঠানে সাজানো হবে। সবাইকে মনে রাখতে হবে লেখাপড়ার মাধ্যমে নতুন প্রজন্মের শিড়্গার্থীদেরকে সুনাগরিক হিসেবে তৈরি করতে হবে। আজকের নতুন প্রজন্ম হবে আগামী দিনের দেশ গড়ার কারিগর। তাই সেইভাবে নতুন প্রজন্মের শিড়্গার্থীদের তৈরি করতে সবাইকে সচেতনভাবে কাজ করতে হবে। আশা করি শিড়্গার্থীরা যাতে কোন ভাবে বিপদগামী না হয় সেদিকে অভিভাবক ও শিড়্গকমন্ডলীকে সজাগ ভুমিকা পালন করতে হবে।