সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড রোধে নিরাপত্তা বলয় তৈরি করতে র‌্যাব

যৌথ তল্লাশি

রোধে নিরাপত্তা বলয় তৈরি করতে র‌্যাব

প্রতিবেদক
যৌথ তল্লাশি
যৌথ তল্লাশি

সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড রোধে নিরাপত্তা বলয় তৈরি করতে র‌্যাব, পুলিশ ও বিজিবি সমন্বয় করে যৌথ তল্লাশি চালাচ্ছে নগরীতে।
গতকাল শুক্রবার দুপুর ১২টা থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত আন্দরকিল্লা মোড়ে সম্মিলিত এ বাহিনীটি তল্লাশি অভিযান পরিচালনা করে। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানা গেছে।
র‌্যাব-৭ এর কমান্ডিং অফিসার (সিও) মিফতাহ উদ্দিন আহমেদ গতকাল সুপ্রভাত বাংলাদেশকে বলেন, ‘এটা তেমন কিছু না। এভাবে অপারেশন আগেও হয়েছে, ভবিষ্যতেও হবে।’
তিনি বলেন, ‘যৌথ অপারেশন নগরীর বাইরেও হচ্ছে।’ আইনশৃঙ্খলা রক্ষার্থে সাধারণত এ যৌথ অপারেশন পরিচালনা করা হয় বলে জানান তিনি।
জানা গেছে, সন্ত্রাসী ঘটনাগুলোর বিশেষ মুহূর্তে প্রশাসন বিভিন্ন বাহিনীর সমন্বয়ে সাধারণত যৌথ অপারেশন পরিচালনা করে থাকে। কোনো কোনো ক্ষেত্রে এ কার্যক্রমকে যৌথবাহিনীর কার্যক্রমও বলা হয়ে থাকে।
সম্প্রতি দুই বিদেশি নাগরিক হত্যা, ব্লগার খুন, আন্তর্জাতিক ও দেশীয় গোষ্ঠীর সন্ত্রাসী তৎপরতাসহ নানান বিষয় নিয়ে চাপে আছে সরকার।
একটি সূত্র জানায়, সন্ত্রাসী হামলার আশংকায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তে গত ক’দিন ধরে চট্টগ্রামে র‌্যাব, পুলিশ ও বিজিবি’র তৎপরতা বাড়ানো হয়েছে।
বিদেশি নাগরিক খুনের পর গত অক্টোবর থেকেই মূলত নগরীর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করে পুলিশ প্রশাসন। এসময় থেকে মূলত নগরীর গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাগুলোতে বাড়ানো হয় পুলিশের তল্লাশি কার্যক্রম এবং চেকপোস্টের সংখ্যা। পাশাপাশি সাদা পোশাকধারী গোয়েন্দাদের তৎপরতাও বাড়ানো হয়েছে। এছাড়া পুরো নগরীকে সিসি ক্যামেরার আওতায় আনার কাজ চলছে পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে।
এর বাইরে সিএমপি কমিশনার আব্দুল জলিল মণ্ডলের নির্দেশনাও কঠোর হয়েছে। তিনি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে আত্মরক্ষার্থে প্রয়োজনে গুলি করার নির্দেশ দেন।
স্ব স্ব অবস্থানে র‌্যাব ও বিজিবি’র তৎপরতাও বেড়েছে। নিরাপত্তামূলক কার্যক্রমে গত মঙ্গলবার থেকে শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর এলাকায় বিজিবি’র সাধারণ সদস্যদের নিরাপত্তার দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি ডগ স্কোয়াডও মোতায়েন করেছে বিজিবি। নগরীর বিভিন্ন স্থানে র‌্যাবের টহলও জোরদার হচ্ছে।
এদিকে গতকাল আন্দরকিল্লায় যৌথ অপারেশন চলাকালে জানা গেছে, দুই ঘণ্টাব্যাপী এ অপারেশনে সন্দেহভাজন নাগরিক, সাধারণ রিকশা, সিএনজি অটোরিকশা ও প্রাইভেট কারে তল্লাশি চালানো হয়েছে।
এছাড়া শুক্রবার জুমার নামাজের সময় আন্দরকিল্লা জামে মসজিদে আগত সন্দেহজনক মুসল্লিদেরকেও তল্লাশি করা হয়েছে।
কোতোয়ালী থানা পুলিশ জানিয়েছে, আন্দরকিল্লা মোড়ে যৌথ অপারেশন চলাকালে দেশীয় চোলাই মদ বহনের দায়ে নারীসহ দুজন এবং সন্দেহজনকভাবে আরো তিনজনকে আটক করা হয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন