বান্দরবানের কেন্দ্রীয় দুর্গা মন্দির

মাটির বেদীর উপর ভেসে উঠেছে রামকৃষ্ণের প্রতিচ্ছবি!

নিজস্ব প্রতিনিধি, বান্দরবান

হিন্দু ধর্মালম্বীদের শ্যামাপূজার আগেরদিন বান্দরবানে কেন্দ্রীয় দুর্গা মন্দিরে মাটির বেদীর উপর (হিন্দুদের ঘট বসানোর স’ান) ভেসে উঠেছে রামকৃষ্ণের প্রতিচ্ছবি।
গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় মন্দিরে ঘট পরিবর্তন করতে গেলে মন্দিরের প্রধান পুরোহিতের সহকারী অনীল কান্তি দাশ অলৌকিক এ দৃশ্য দেখতে পান।
স’ানীয় হিন্দু ধর্মালম্বীরা জানায়, কেন্দ্রীয় দুর্গা মন্দিরের প্রধান পুরোহিতের সহকারী অনীল কান্তি দাশের কাছে বিষয়টি আশ্চর্য্যজনক মনে হলে তিনি মন্দিরে থাকা অন্যদের ডেকে নিয়ে যান। পরে মুহূর্তে বিষয়টি ছড়িয়ে পড়ে বান্দরবান শহরে। এদিকে অলৌকিক বিষয়টি দেখতে মন্দিরে ভিড় জমান শতশত মানুষ।
কেন্দ্রীয় দুর্গা মন্দিরের সাধারণ সম্পাদক লক্ষী পদ দাশ জানান, ‘এটি ভগবানের পক্ষ থেকে একটি অলৌকিক মজিজা। মানুষ যখন সৃষ্টিকর্তাকে ভুলে যায় বা ভগবানের সাথে মানুষের দুরত্ব সৃষ্টি হয়, তখন এ ধরনের অলৌকিক ঘটনা ঘটে। অতীতেও এ ধরনের ঘটনা দেশের বিভিন্ন জায়গায় ঘটেছে। আমাদের মন্দিরে এ ধরনের একটি অলৌকিক ঘটনা ঘটেছে আমরা ভাগ্যবান। এটি দেখতে লোকজন ভিড় জমিয়েছে; আমরা রামকৃষ্ণের প্রতিচ্ছবি ভেসে উঠা মাটির বেদীটি সংরক্ষণের ব্যবস’া করব।
এদিকে খবর পেয়ে বিষয়টি দেখতে মন্দিরে ছুটে যান বান্দরবানের জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিকসহ প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ঊধ্বর্তন কর্মকর্তারা। এ বাপারে জেলা প্রশাসক
দিলীপ কুমার বণিক জানান, ঘটনাটি ঘটার পর আমাকে জানালে আমি বিষয়টি দেখতে যায়। ঘটনাটি আমার কাছেও ন্যাচারাল মনে হয়েছে। এটি কারো আঁকা/কৃত্রিম কোনো প্রতিচ্ছবি নয়। এটি একটি অলৌকিক ঘটনা।