মন্ত্রিসভার বৈঠকে খালেদাকে নিয়ে কবিতা ইয়াফেস ওসমানের

সুপ্রভাত ডেস্ক

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধে নিহতের সংখ্যা নিয়ে প্রশ্ন তোলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে নিয়ে একটি কবিতা লিখেছেন বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান। সোমবার মন্ত্রিসভা বৈঠকে নিজের লেখা কবিতাটি আবৃত্তি করেও শুনিয়েছেন কথাসাহিত্যিক শওকত ওসমানের এই ছেলে। খবর বিডিনিউজ’র।
আর কবিতা শোনানোর পর আগের মতোই তিনি হাততালি পেয়েছেন বলে বৈঠকে অংশ নেওয়া একাধিক মন্ত্রী জানিয়েছেন।
ইয়াফেস ওসমান লিখেছেন-
লন্ডন ফেরত বেগম সাহেব/দিলটা তবু পাকি/ মুক্তিযুদ্ধ হয়নি আদৌ/ বলতে কেবল বাকি। পাকি প্রেমে বিভোর হয়ে/ বলছে পাকি বুলি/ ‘ পেয়ার কিয়া তো ডরনা কিয়া’/ ধরছে গানের কলি।
একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধে নিহতের সংখ্যা নিয়ে প্রশ্ন তুলে গত ২১ ডিসেম্বর খালেদা জিয়া বলেছিলেন, ‘আজকে বলা হয়, এত লক্ষ লোক শহীদ হয়েছেন। এটা নিয়েও অনেক বিতর্ক আছে যে আসলে কত লক্ষ লোক মুক্তিযুদ্ধে শহীদ হয়েছেন। নানা বই-কিতাবে নানারকম তথ্য আছে।’
খালেদা জিয়ার এই বক্তব্যের তীব্র প্রতিক্রিয়া এসেছে বিভিন্ন মহল থেকে। কেউ কেউ সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস’া নেওয়ারও দাবি জানিয়েছেন।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন মন্ত্রী বলেন, সোমবারের মন্ত্রিসভা বৈঠকে পে-স্কেল নিয়ে দীর্ঘক্ষণ আলোচনা করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
‘সভার শেষ দিকে সাদা কাগজে প্রিন্ট করা নিজের লেখা কবিতা প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেন ইয়াফেস ওসমান। পরে কবিতাটি আবৃত্তি করেন তিনি।’
কবিতা আবৃত্তির পরে মন্ত্রিসভার সদস্যরা কোনো মন্তব্য করেছেন কি না- জানতে চাইলে ওই মন্ত্রী বলেন, ‘সবাই হাততালি দিয়েছেন, মন্ত্রিসভার গুরুগম্ভীর পরিবেশও নিমিষেই কেটে যায়।’
দাপ্তরিক সভাসহ বিভিন্ন আলোচনা সভায় স্বভাব কবিসুলভ পদ্য আওড়ে সহকর্মীদের মধ্যে ইতোমধ্যে ‘সভাকবি’ পরিচয় পেয়েছেন স’াপত্যকলায় ডিগ্রিধারী ইয়াফেস। তিনি একাত্তরে ২ নম্বর সেক্টরের সক্রিয় একজন মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন