ভিটামিন ‘এ’ খাওয়ানো হচ্ছে না আজ

সুপ্রভাত ডেস্ক

আজ শনিবার সারাদেশে শিশুদের যে ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানোর কথা ছিল, তা হচ্ছে না। গত বৃহস্পতিবার জনস্বাস’্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠান এক বিজ্ঞপ্তিতে এই কর্মসূচি স’গিতের কথা জানিয়েছে। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘অনিবার্য কারণ বশত আগামী ১৯ জানুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন স’গিত করা হয়েছে। ক্যাম্পেইনের পরিবর্তিত তারিখ পরবর্তীতে জানানো হবে।’ খবর বিডিনিউজের।
বিজ্ঞপ্তিতে কর্মসূচি স’গিতের কোনো কারণ জানানো হয়নি।
স্বাস’্য অধিদপ্তরের এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, ‘ক্যাপসুলের টেকশ্চারে সমস্যা থাকায় শনিবারের কর্মসূচি স’গিত করা হয়েছে।’
তিনি বলেন, ‘কয়েক জায়গায় খুলে দেখা গেছে, ক্যাপসুলগুলো একটির সঙ্গে আরেকটি লেগে আছে। তবে পরীক্ষা করে দেখা গেছে, ওষুধের মানের কোনো সমস্যা ছিল না।’
নতুন ক্যাপসুল এনে আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে খাওয়ানোর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে এই কর্মকর্তা জানান।
ভিটামিন ‘এ’ দেহের স্বাভাবিক বৃদ্ধিতে সহায়তা করে, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় এবং শিশুমৃত্যুর ঝুঁকি কমায়।
এই কারণে বাংলাদেশ সরকারের স্বাস’্য নীতিমালা অনুযায়ী, ভিটামিন ‘এ’ এর অভাব পূরণে বছরে দুই বার সম্পূরক খাদ্য হিসেবে ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হয়।
আগের ঘোষণা অনুযায়ী, শনিবার সারাদেশে জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইনের দ্বিতীয় রাউন্ডে ছয় মাস থেকে পাঁচ বছর বয়সী দুই কোটির বেশি শিশুকে ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানোর কথা ছিল।
এই কর্মসূাচিতে ৬ থেকে ১১ মাস বয়সী সব শিশুদের ১টি করে নীল রঙের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল এবং ১২ থেকে ৫৯ মাস বয়সী সব শিশুকে ১টি করে লাল রঙের ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানোর কথা। ভিটামিন ‘এ’ এর অভাবে রাতকানাসহ চোখের অন্যান্য রোগ এবং রক্তশূন্যতাও হতে পারে।