ভাসানচরে রোহিঙ্গা পুনর্বাসনের বিরুদ্ধে সন্দ্বীপবাসীর পক্ষে রিট

নিজস্ব প্রতিনিধি, সন্দ্বীপ

চট্টগ্রাম জেলার সন্দ্বীপ উপজেলার অবিচ্ছেদ্য অংশ ভাসানচরে (সাবেক ঠেঙ্গারচর) মিয়ানমার থেকে বিতাড়িত উদ্বাস’ রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসনের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে সন্দ্বীপবাসীদের পক্ষে রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ আদালতে রিট পিটিশন দাখিল করা হয়েছে।
গতকাল হাইকোর্টের আপিল ডিভিশনে বিচারপতি নাঈমা হায়দারের বেঞ্চে জনস্বার্থে এ রিট পিটিশনটি দাখিল করেন মনিরুল হুদা বাবন।
রিট সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রাম জেলার সন্দ্বীপ উপজেলার নদী ভাঙনে বিলীন সাবেক নেয়ামস্তি ইউনিয়নটি বর্তমানে সন্দ্বীপ উপকূলে সাগর বক্ষে জেগে ওঠা লোকমুখে কথিত ঠেঙ্গারচর বর্তমানে ভাসানচর নামে অভিহিত। সন্দ্বীপ সংলগ্ন এই চরে আন্তর্জাতিক শরণার্থী আইনকে উপেক্ষা করে রোহিঙ্গাদেরকে তাদের নিজ দেশ মিয়ানমার ফেরত না পাঠিয়ে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে পুনর্বাসন কেন অবৈধ ও বেআইনি ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চাওয়া হয়েছে সরকারের সংশ্লিষ্ট বিভাগের (স্বরাষ্ট্র ও পররাষ্ট্র) কাছে।

আগামী রোববার এ বিষয়ে শুনানির দিন ধার্য করা হয়েছে বলে জানা গেছে। বাদিপক্ষে এ মামলা পরিচালনা করছেন অ্যাডভোকেট মোশাররফ হোসেন লাল্টু।