৪ দশমিক ৯ রিকটার স্কেল

বৃহত্তর চট্টগ্রামে মৃদু ভূমিকম্প

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশ-ভারত (বান্দরবান) সীমান্তে উৎপত্তি হওয়া ভূমিকম্পে কেঁপে উঠলো বৃহত্তর চট্টগ্রাম এলাকা। বান্দরবানের পূর্বে উৎপত্তি হওয়া ভূমিকম্পটির মাত্রা ছিল ৪ দশমিক ৯ রিকটার স্কেল। মৃদু এই ভূমিকম্পটি গতকাল সকাল ৮টা ৫৮ মিনিট ৫০ সেকেন্ডে ঝাঁকুনি দেয়। ভূমিকম্পের দূরত্ব ছিল ঢাকার আগারগাঁও থেকে ২৯০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পূর্বে।
এদিকে ভূমিকম্প ভিত্তিক আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট ইউএসজিএসের তথ্য মতে, মাটির ১০ কিলোমিটার গভীরে এই ভূমিকম্পটির উৎপত্তি হয়। যে এলাকায় ভূমিকম্পটির উৎপত্তি হয় সেখানে এর আগেও বিভিন্ন মাত্রার ভূমিকম্প হয়েছিল। এর পূর্ব পাশ দিয়ে ফল্ট লাইন গিয়েছে, এজন্য স্বাভাবিকভাবেই এখানে বিভিন্ন মাত্রার ভূমিকম্প হয়ে আসছে। তবে এই ভূমিকম্পটি মাটির বেশি গভীরে না হওয়ায় এর ঝাঁকুনি বেশি অনুভূত হয়েছে।
এদিকে ভূমিকম্পের উৎপত্তিস’ল থেকে চট্টগ্রামের দূরত্ব ১১৭ কিলোমিটার। তারপরও ভূমিকম্পে এই এলাকার ভবনগুলো কেঁপে উঠে। তবে ভূমিকম্পে তাৎক্ষণিকভাবে কোথাও ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি।
উল্লেখ্য, বাংলাদেশ ও মিয়ানমার সীমান্তের পাশ দিয়ে একটি ফল্ট লাইন ভারতের আসাম ও মিজোরাম হয়ে নেপালের হিমালয় পর্বতমালা পর্যন্ত বিস্তৃত। এই ফল্ট লাইনের উভয়পাশে প্রায়ই বিভিন্ন মাত্রার ভূমিকম্প হয়ে থাকে।