বৃষ্টির কারণে ঈদ যাত্রায় ভাটা

নিজস্ব প্রতিবেদক

বৃষ্টির ভোগান্তি ও পথের নানা ঝক্কি-ঝামেলা নিয়েই গতকাল বাসে ও ট্রেনে ঈদ যাত্রা করেন অনেকে। তবে নগরীর বেশ কিছু জায়গায় জলজট ও নিচতলার বাসাতে পানি ঢুকে যাওয়ায় ঈদের ছুটিতে বাড়ি যাওয়ার পরিকল্পনা বাদ দিতে হচ্ছে অনেককে।
অন্যান্য বছর ঈদের পূর্বমুহূর্তের এ সময় অনেক ভিড় দেখা যেত রেল স্টেশন ও আন্তঃজেলা বাস কাউন্টারগুলোতে। কিন’ এবছর বৃষ্টির কারণে খুব একটা ভিড় দেখা যায়নি। যারা আগাম টিকিট কেটে রেখেছেন, তারাই শুধু ভিড় করছেন রেল স্টেশন ও আন্তঃজেলা বাস কাউন্টারগুলোতে।
শ্যামলী পরিবহনের টিকিট বিক্রেতা উদয়ন বলেন, ‘ঢাকা ছাড়া অধিকাংশ জায়গার টিকিট অনেক আগেই বিক্রি হয়েছে। এবার মহাসড়কেও যানজটের তেমন কোনো ভোগান্তি হওয়ার সম্ভাবনা নেই। তবু বৃষ্টির কারণে কাউন্টারে উল্লেখযোগ্য কোনো ভিড় চোখে পড়ছে না। সবসময়ের মতোই বাস যাত্রা চলছে। ঈদের পূর্বমুহূর্তেও বলার মতো কোনো ভিড় এখনো পর্যন্ত চোখে পড়েনি।’
হানিফ পরিবহনের টিকিট বিক্রেতা
সুফিয়ান বলেন, ‘আমাদের কাউন্টারে সবসময় যেরকম ভিড় থাকে, এখনো সেরকমই ভিড় হচ্ছে। তবে বৃষ্টি বাদলের কারণে লোকজন বাসা থেকে বের হতে পারছেন না। তবু দেখা যাক, বৃহস্পতিবার কি হয়!’
চট্টগ্রাম রেলওয়ে স্টেশন ব্যবস’াপক মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, ‘অন্যবারের মতো এবার খুব একটা ভিড় দেখা যায়নি। অতীতে এমন দিনে অনেক ভিড় হতো। অনেক বেশি পরিমাণ স্ট্যান্ডিং টিকিট বিক্রি হতো। যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আমাদের অনেক কষ্ট হতো। এবার যাত্রীদের সেরকম কোনো চাপ দেখা যাচ্ছে না। তবে বৃহস্পতিবার থেকে ভিড় বাড়তে পারে।’
চট্টগ্রাম রেলওয়ে পুলিশের প্রধান পরিদর্শক সত্যজিৎ দাশ বলেন, ‘সকালে তেমন একটা ভিড় ছিলো না। বিকেল পাঁচটার দুইটি ট্রেনে কিছু মানুষ দেখা গেলেও অতীতের মতো ভিড় হয়নি।’