বায়েজিদে গৃহবধূকে পিটিয়ে মারলো স্বামী

নিজস্ব প্রতিবেদক

নগরীর বায়েজিদ বোসত্মামী এলাকায় দাম্পত্য কলহের জেরে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা করেছে তার স্বামী। গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে এ ঘটনা ঘটে।
গৃহবধূটির নাম তাহেরা বেগম (৩২)। তিনি চার সনত্মানের জননী ছিলেন। স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগে পুলিশ ঘাতক স্বামী নুর হোসেনকে (৪২) আটক করেছে। এ দম্পতি বায়েজিদ বোসত্মামী থানার রওফাবাদ পাহাড়িকা আবাসিক সোসাইটির মাহবুব আলমের কলোনিতে ভাড়া বাসায় থাকতেন। দেড় বছর ধরে তারা এ বাসায় বসবাস করে আসছিলেন। তাদের গ্রামের বাড়ি বাঁশখালী উপজেলার জলদিতে। পুলিশ তাহেরা বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।
তাহেরা বেগমের মাথায় একটি বড় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে জানিয়েছেন বায়েজিদ থানার এসআই মো. হেলাল উদ্দিন। তিনি সুপ্রভাতকে বলেন, ‘ওই বাসার আশপাশের প্রতিবেশীরা আমাদের জানিয়েছে, বিকেল তিনটার দিকে তাহেরা বেগমের সাথে তার স্বামী নুর হোসেনের ঝগড়া হয়। ঝগড়ার এক পর্যায়ে নুর হোসেন তার স্ত্রীকে কাঠ দিয়ে বেদম প্রহার করে। কাঠের আঘাতে মাথা ফেটে যায় তাহেরার। এতে ঘটনাস’লে তার মৃত্যু হয়।’
তবে নুর হোসেন পুলিশের কাছে ঘটনার দায় স্বীকার করেনি। তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গতকাল আদালতে রিমান্ড চেয়েছে পুলিশ। আজল বুধবার আদালতে রিমান্ড শুনানি হবে বলে জানান এসআই হেলাল উদ্দিন।