চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে সেমিনারে বক্তারা

প্রকৃত ইসলামি শিক্ষার প্রসারে সন্ত্রাস দূর হবে

সেমিনারে বক্তব্য রাখছেন শাহ্‌সূফী সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্‌-হাসানী (মাজিআ)
সেমিনারে বক্তব্য রাখছেন শাহ্‌সূফী সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্‌-হাসানী (মাজিআ)

মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফের বর্তমান ইমাম হযরত শাহ্‌সূফী সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ আল্‌-হাসানী (মাজিআ) বলেন, প্রকৃত ইসলামি শিক্ষার প্রসারে দেশ-সমাজ থেকে সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ ও অবক্ষয় দূর করা সম্ভব। আমাদের যুবসমাজ আজ নানাভাবে অবক্ষয় ও বিপথগামিতার শিকার। মাদক ও জঙ্গিবাদের থাবায় যুব তরুণ ও শিক্ষিত সমাজের এক বড় অংশ ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে। তাদের সামনে ইসলামের শান্তি সাম্য সম্প্রীতি ও ভালোবাসার দর্শন তুলে ধরে উজ্জ্বল, সমৃদ্ধ ও তাৎপর্যপূর্ণ আলোকিত ভবিষ্যতের প্রেরণা যোগাতে হবে। মাইজভাণ্ডার রহমানিয়া মইনীয়া মাদ্রাসার সাবেক ছাত্র সংসদ আয়োজিত ‘দ্বীনি শিক্ষা প্রসারে হযরত শাহ্‌সূফী মাওলানা সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ আল্‌-হাসানীর (রহ.) প্রেরণা ও অবদান’ শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের আব্দুল খালেক মিলনায়তনে ১১ আগস্ট অনুষ্ঠিত সেমিনারে বক্তারা বলেন, মাইজভাণ্ডারী মহাত্মা-মনীষীগণ দেশ ও সমাজে দ্বীনি চেতনা প্রসারে অবদান রেখে যাচ্ছেন।
শান্তি-সমপ্রীতি ও মানবিক সহনশীল সমাজ প্রতিষ্ঠাই ছিল হযরত সৈয়দ মইনুদ্দীন আহমদ মাইজভাণ্ডারী (রহ.)’র জীবনাদর্শ। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে অর্ধশতাধিক দ্বীনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার মাধ্যমে দ্বীনি শিক্ষা প্রসারে দিশারী ও পথিকৃতের ভূমিকা রাখেন তিনি।
সংগঠনের সভাপতি হাফেজ নূরুল আমীনের সভাপতিত্বে ও মাওলানা বাকের আনসারীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সেমিনারে প্রধান বক্তা ছিলেন জমিয়তুল ফালাহ জাতীয় মসজিদের খতিব আল্লামা আবুল তালেব মো. আলাউদ্দিন।
আলোচনায় অংশ নেন শাহজাদা মাওলানা সৈয়দ নঈমুল কুদ্দুস হাওলাপুরী, মাওলানা শায়েস্তা খান, আন্‌জুমান কেন্দ্রীয় মহাসচিব শাহ মো. আলমগীর খান, সূফীজ চট্টগ্রাম জেলা সভাপতি অ্যাডভোকেট কাজী মহসীন চৌধুরী, সাবেক পিপি অ্যাডভোকেট আবুল হাশেম, মহানগর আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, আন্‌জুমান কেন্দ্রীয় সহসভাপতি আলহাজ কবির চৌধুরী, কেন্দ্রীয় সহপ্রচার সম্পাদক শাহ মো. ইব্রাহিম মিয়া, মহানগর সভাপতি খলিফা বোরহান উদ্দিন, দক্ষিণ জেলা সাধারণ সম্পাদক কাজী মো. শহিদুলাহ, ছাত্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক হাফেজ মো. মিজানুর রহমান, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক হাফেজ মো. জহিরুল ইসলাম প্রমুখ। বিজ্ঞপ্তি