নাসিমন ভবনে সভা সমাবেশে ‘নিষেধাজ্ঞা’! বেকায়দায় বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক

চট্টগ্রাম মহানগর এবং উত্তর জেলা বিএনপি ও এর অঙ্গ সংগঠনগুলোকে হঠাৎ দলীয় কার্যালয় নাসিমন ভবনে সভা-সমাবেশের অনুমতি দিচ্ছে না চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ (সিএমপি)। চট্টগ্রাম উত্তর এবং নগর যুবদল ও ছাত্রদলকে গত দুই দিন নাসিমন ভবনে কেন্দ্রঘোষিত বিড়্গোভ কর্মসূচির অনুমতি দেওয়া হয়নি। আজ সোমবার উত্তর জেলা ও নগর স্বেচ্ছাসেবক দলেরও কেন্দ্রঘোষিত কর্মসূচি ছিল। কিন’ গতকাল সিএমপি দপ্তর থেকে তাদের অনুমতির আবেদন নাকচ করে দেওয়া হয়।
‘২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ে তারেক রহমানসহ বিএনপি নেতাদের মিথ্যা সাজা দেয়ার প্রতিবাদে’ কেন্দ্র থেকে ৭ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করে বিএনপি। এরমধ্যে দলটির অঙ্গ সংগঠনগুলোরও কর্মসূচি ছিল। ১১ অক্টোবর দলীয় কার্যালয় নাসিমন ভবনে কেন্দ্রঘোষিত প্রথম কর্মসূচি বিড়্গোভ সমাবেশ পালন করেছিল নগর ও উত্তর জেলা বিএনপি। কিন’ এরপর গত দুই দিন নগর এবং উত্তর জেলা যুবদল ও ছাত্রদলকে কর্মসূচির অনুমতি দেয়নি সিএমপি। ১৬ অক্টোবর নগর বিএনপির কেন্দ্রঘোষিত কালো পতাকা মিছিল কর্মসূচি রয়েছে।
নগরীর কাজীর দেউড়ি নূর আহমদ সড়কের নাসিমন ভবনে চট্টগ্রাম মহানগরের পাশাপাশি উত্তর জেলা বিএনপিরও দলীয় কার্যালয় রয়েছে।
কেন অনুমতি দিচ্ছে না সিএমপি ?
সিএমপির বিশেষ শাখার (এসবি) উপ-কমিশনার আবদুল ওয়ারিশের কাছে এর কারণ জানতে চাইলে তিনি সুপ্রভাতের কাছে স্ববিরোধী ব্যাখ্যা দেন। গতকাল সুপ্রভাতকে তিনি প্রথমে বলেন, ‘ঢাকায় কেন্দ্রীয়ভাবে বিএনপি এসব কর্মসূচি পালন করছে না। সে কারণে চট্টগ্রামে আমরা তাদেরকে কর্মসূচির অনুমতি দিচ্ছি না।’
প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘নগরীতে তারা কর্মসূচির জন্য আবেদন করলেও বিগত সময়ে নাসিমন ভবনে বিএনপি নেতাকর্মীরা বিশৃঙ্খলা করেছে। বিশৃঙ্খলা করলে আমরা কেন তাদেরকে অনুমতি দিবো ?’
চট্টগ্রাম নগর এবং উত্তর জেলা যুবদল ও ছাত্রদল দলীয় কার্যালয় নাসিমন ভবনে গত দুই দিন সভার অনুমতি না পেয়ে নগরীর নূর আহমদ সড়ক ও মুরাদপুর এলাকায় পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে গোপনে এ বিড়্গোভ কর্মসূচি পালন করেছে। জামায়াত-শিবিরের মতো ঝটিকা মিছিল করে রাসত্মায় ব্যানার টাঙিয়ে মিনিট দুয়েক সভা করে সটকে পড়েছেন তারা।

নগর যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক এমদাদুল হক বাদশা সুপ্রভাতকে বলেন, ‘পার্টি অফিসে সভা করতে আমরা অনুমতি চেয়েছিলাম। কিন’ সিএমপি দেয়নি। নূর আহমদ সড়কে আমরা এ কর্মসূচি পালন করি।
নগর ছাত্রদলের সভাপতি গাজী মো. সিরাজ উলস্নাহ সুপ্রভাতকে বলেন, ‘পার্টি অফিসে সিএমপি অঘোষিত নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। নগরীর একটি স’ানে আমরা কেন্দ্রঘোষিত বিড়্গোভ কর্মসূচি পালন করেছি।’
চট্টগ্রাম উত্তর জেলা যুবদলের সহসভাপতি ইলিয়াছ আলী সুপ্রভাতকে বলেন, ‘পার্টি অফিসে করতে আমরা অনুমতি চেয়েছিলাম। কিন’ পুলিশ আমাদের পার্টি অফিসে ভিড়তে দেয়নি। পরে আমরা মুরাদপুর ফ্লাইওভারে এ কর্মসূচি পালন করি।’
দলীয় সূত্রে জানা গেছে, নিউমার্কেট দোসত্ম বিল্ডিং দলীয় কার্যালয়েও সভার অনুমতি পাচ্ছে না চট্টগ্রাম দড়্গিণ জেলা বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনগুলো। তারা কর্ণফুলী সেতু এলাকার আশোপাশে গোপনে এসব কর্মসূচি পালন করেছে।