নগরীতে মিস্টার এন্ড মিস আইডল প্রতিযোগিতা

আজিজুল কদির
Untitled-1

শখকে অতিক্রম করে মডেলিং এখন পেশা হিসেবেও বিবেচিত হচ্ছে। তবে মডেলিংকে পেশা হিসেবে নেবার আগে এ সম্পর্কে পূর্ণাঙ্গ জানা-শোনার অভাবেই অনেক প্রতিভা থাকার পরও মডেলিং ইন্ডাস্ট্রিতে টিকে থাকতে অনেকেই ব্যর্থ হন। আমাদের দেশের মডেলিং ইন্ডাস্ট্রিকে সাধারণ মূল তিনটি ধরনে বিভক্ত করা যেতে পারে। টিভি মিডিয়ায় বিজ্ঞাপনচিত্রের মডেলিং, ফ্যাশন হাউসের জন্য মডেলিং ও র‌্যাম্প মডেলিং। আর এই তিন ক্ষেত্রেই বিচরণ করেছেন এমন মডেলের সংখ্যাও নগণ্য নয়। তবুও আরো সুন্দর বুদ্বিদীপ্ত মডেল খুঁজতে মডেল ওয়ার্ল্ড অয়োজন করলো আইডল মডেল প্রতিযোগিতা ২০১৭। নগরীর টিআইসি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ফ্যাশন কিউতে চুড়ান্ত পর্যায়ে পুরুষ ১০ জন ও নারী ১০ জন বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে মনোনিত হয়। বিচারক হিসেবে ছিলেন আবৃত্তি শিল্পী শাওন পান্থ ও বিউটিশিয়ান সীমা খান। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন প্যানেল মেয়র হাসান মোহাম্মদ হাসনি।
অনুষ্ঠানের শুরুতে বিজয়ের চেতনায় উদ্বেলিত একদল তরুণ তরুণী বিজয়কেতন পতাকা উড়িয়ে ‘মোরা একটি ফুলকে বাচাঁব বলে যুদ্ধ করি’ নৃত্য ছন্দে এক চমৎকার পরিবেশনায় দর্শক মোহিত করে। এরপর একক সংগীত পরিবেশন করে কন্ঠশিল্পী আসাদ। এছাড়া র‌্যাম্পে অংশ নেয় লাল সবুজের বর্ণিল আয়োজনে বিজয় উল্লাসে উচ্ছ্বল তারুণ্যদল।