চট্টগ্রাম চেম্বারের আন্তর্জাতিক এসএমই মেলা শুরু কাল

নিজস্ব প্রতিবেদক

অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি’র উদ্যোগে ‘দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প (এসএমই) মেলা-২০১৭’ আগামীকাল শনিবার সকাল থেকে আগ্রাবাদের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারে শুর হচ্ছে। তবে আগামী রোববার দেশীয় পণ্যের প্রদর্শন, বিপণনের মাধ্যমে ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প বিকাশের লক্ষ্যে আয়োজিত তিন দিনব্যাপী এই মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বিদ্যুৎ-জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ, নৌ-পরিবহন এবং পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য এমএ লতিফ।
মেলা উপলক্ষে ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের বঙ্গবন্ধু কনফারেন্স হলে গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে চট্টগ্রাম চেম্বার।
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ছয়টি ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানসহ পণ্য ও সেবা খাতের ৩০টিরও অধিক প্রতিষ্ঠান এবারের মেলায় অংশগ্রহণ করছে। মেলায় দুটি ক্যাটাগরির মধ্যে প্রাইম জোনে ২৪টি এবং জেনারেল জোনে ৩৪টিসহ মোট ৫৮টি স্টল থাকবে। এবারের এসএমই মেলার স্পন্সর হিসেবে রয়েছে এনসিসি ব্যাংক এবং ফুড পার্টনার হিসেবে অংশগ্রহণ করবে বনফুল।
আয়োজকরা আরো জানান, মেলার সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে পুলিশ ও র‌্যাবের টহল অব্যাহত থাকবে। দর্শনার্থীদের প্রবেশ পথে নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্যে আর্চওয়ে স্থাপন করা হয়েছে। অনাকাঙ্ক্ষিত দুর্ঘটনা রোধে চেম্বারের প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত একটি অগ্নিনির্বাপক দল প্রস্তুত থাকবে। এছাড়া সার্বক্ষণিকভাবে মেলা প্রাঙ্গণে আনসার ও নিরাপত্তী রক্ষী নিয়োজিত থাকবে। আগামী সোমবার পর্যন্ত মেলা চলবে। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত এগারোটা পর্যন্ত এই মেলা সকলের জন্য উন্মুক্ত থাকবেন।
এসএমই এগিয়ে গেলে অর্থনীতি এগিয়ে যাবে বলে মনে করেন চট্টগ্রাম চেম্বারের সভাপতি মাহবুবুল আলম। সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘এসএমই অর্থনীতির প্রাণ শক্তি। এসএমই ঋণ নিতে গিয়ে অনেককে অনেক ঝামেলা পোহাতে হয়। এসব ঝামেলা নিরসনে সচেতনতা সৃষ্টি করতেই আমাদের এই এসএমই মেলা। ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প ২০০৯ সালের পর থেকে বিকশিত হচ্ছে। অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড বিকশিত করা আমাদের মেলার মূল লক্ষ্য। অর্থনেতিক কর্মকাণ্ড এগিয়ে নেওয়ার জন্য চট্টগ্রাম চেম্বার কাজ করছে।’
সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন চেম্বারের সহ-সভাপতি ও মেলার কো-কনভেনর সৈয়দ জামাল আহমেদ, পরিচালক অহিদ সিরাজ স্বপন প্রমুখ।