কঙ্গোতে বন্যায় নিহত ৪৫ ঘরছাড়া হাজারো মানুষ

সুপ্রভাত বহির্বিশ্ব ডেস্ক

আফ্রিকার ডি আর কঙ্গোতে বন্যায় অন্তত ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। ঘরহীন হয়ে পড়েছেন পাঁচ হাজারেরও বেশি মানুষ। কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিররা এক প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা যায়। খবর বাংলাট্রিবিউন।
প্রতিবেদনে বলা হয়, অতিবৃষ্টি ও বন্যার কারণে কঙ্গোর কিনশাসা শহর ধ্বংসাবশেষে পরিণত হয়েছে। গত ৩ জানুয়ারি বৃষ্টি শুরু হয়। রোববার পর্যন্ত টানা বৃষ্টি চলে। বৃষ্টির কারণে বাড়িতে পানি ঢুকে যায়, অনেক দেয়াল ভেঙে পড়ে। সৃষ্টি হয় ভূমিধস।
স্থানীয় বাসিন্দা শিমস বাদিবাঙ্গা বলেন, ‘আমরা খুবই ব্যাথিত। বৃষ্টির কারণে আমার বোনের পাঁচ শিশু প্রাণ হারিয়েছে। আমি সান্ত্বনা দেওয়ার ভাষা খুঁজে পাচ্ছি না।‘
বিশ্ব সাস্থ্য সংস্থা জানায়, এই বন্যায় কলেরার ভয়াবহতা দেখা দিতে পারে। বিগত ২০ বছরে কঙ্গো এমন ভয়াবহ কলেরা দেখেনি। গত জুলাইয়ে দেশটিতে কলেরায় আক্রান্ত হয়ে মারা যান অন্তত ১১৯০ জন। দেশটির ২৬ প্রদেশের ২৪টিতেই এই রোগ ছড়িয়ে পড়ে।
ডক্টরস উইদাউট বর্ডারসের জন লিয়ংল বলেন, গত সপ্তাহেই আমরা ২০টি ঘটনা দেখেছি। এখন প্রতি সপ্তাহে ১০০ জন রোগী আসছে আমাদের কাছে।