শুরু ২৭ জানুয়ারি

একুশটি দেশের৯৫ ভেন্যুতে চারদিনের ভাস্কর্য প্রদর্শনী

আজিজুল কদির

ভাস্কর্যশিল্প তার স্বভাবজাত উপস’াপনার কারণে চেতনার অসীমতা স্পর্শ করে। এর উপস’াপনা দ্বি ও ত্রিমাত্রিকতা ছাড়িয়ে একবিংশ শতাব্দীতে এসে ধারণা প্রবণতায় বিবর্তিত হয়েছে। এর বহুমাত্রিক রূপ বৈশ্বিক শিল্পচচর্চার অঙ্গনকে সমৃদ্ধ করেছে। এই সমৃদ্ধির জোয়ারে যুক্ত হতে যাচ্ছে আন্তর্জাতিকভাবে অনুষ্ঠেয় স্টার্ট ’১৯ ইন্টারন্যাশনাল সেলিব্রেশন অব কনটেমম্পোরারি স্কাল্পচার। জার্মানভিত্তিক স্কাল্পচার নেটওয়ার্ক-এর উদ্যোগে ২৭ জানুয়ারি থেকে চারদিনব্যাপী বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১টি দেশের ৯৭টি ভেন্যুতে প্রায় পাঁচ হাজার শিল্পীর অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হবে স্টার্ট ’১৯। প্রদর্শনীর শিরোনাম ‘ত্রিমাত্রিক শিল্প ও সমাজ’। আন্তর্জাতিক প্রদর্শনীটির অন্যতম ভেন্যু চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা ইনস্টিটিউটের শিল্পী রশীদ চৌধুরী আর্ট গ্যালারি ও আঁলিয়স ফ্রঁসেজ গ্যালারি, চট্টগ্রাম।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন চট্টগ্রাাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী। বিশেষ অতিথি থাকবেন উপ-উপাচার্য ড. শিরীণ আখতার, কলা ও মানবিকবিদ্যা অনুষদের ডিন ড. মো. সেকান্দার চৌধুরী, ভাস্কর হামিদুজ্জামান, শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিনের পুত্র মঈনুল আবেদিন, শিশির দত্ত, চট্টগ্রাম চারুকলা ইনস্টিটিউটের পরিচালক শিল্পী শায়লা শারমিন সাথী।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন প্রফেসর ড. ফয়জুল আজিম। প্রদর্শনীর কিউরেটর থাকবেন আলিয়ঁস ফ্রঁসেজ- চট্টগ্রামের পরিচালক সেলভাম থোরেজ।
সেমিনারে বক্তব্য রাখবেন শিল্পী-সাংবাদিক সৈয়দ আবদুল ওয়াজেদ। এক্সপ্লোর আর্ট হেরিটেজ অব ইউরোপ শীর্ষক স্লাইড প্রদর্শন করবেন চিটাগং সেন্টার ফর এডভান্স স্টাডিজের গবেষক শিল্পী জিয়াউদ্দিন চৌধুরী।
এবারের হোস্ট ভেন্যু কো অর্ডিনেটর অধ্যাপক প্রণবমিত্র চৌধুরী জানান, প্রখ্যাত ভাস্কর হামিদুজ্জামানের ভাস্কর্যসহ চারুকলা ইনস্টিটিউটের ছাত্র-শিক্ষক, ভাস্কর্যচর্চায় নিবেদিত চট্টগ্রাম, ঢাকা, রাজশাহী, খুলনার ৮১ জন শিল্পীর গ্রুপ শিল্পকর্মসহ ৭৭টি শিল্পকর্ম প্রদর্শনীতে স’ান পাবে। মাধ্যম ও উপস’াপনায় বহুমাত্রিকতা এ প্রদর্শনীকে সমৃদ্ধ করেছে। আদি ও প্রাকৃতিক মাধ্যম মাটি ও কাঠের সাথে যুক্ত হয়েছে ধাতু, প্লাস্টার, কাগজ, প্লাস্টিক, আলো ও শব্দ। ভাস্কর্যসমূহে শিল্পীদের বাস্তব, আধুনিক, উত্তরাধুনিক ধারণা সমভাবে প্রদর্শিত হবে।
প্রদর্শনীতে অশংগ্রহণকারী শিল্পীদের নিরীক্ষাধর্মিতা ও সৃজনের বৈচিত্র্য আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে বাংলাদেশের শিল্পকলার মৌলিক অবস’ান সুদৃঢ় করবে বলে আশা করছেন আয়োজকেরা। চারুকলা ইনস্টিটিউটের শিল্পী রশীদ চৌধুরী আর্ট গ্যালারি ও আলিয়ঁস ফ্রঁসেজ-চট্টগ্রাম গ্যালারিতে ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত প্রদর্শনীটি সবার জন্য উম্মুক্ত থাকবে।