চন্দনাইশে ছাত্রলীগ নেতার হাত কাটার মামলা

একজনের যাবজ্জীবন

নিজস্ব প্রতিনিধি, চন্দনাইশ গ্ধ

চন্দনাইশে ছাত্রলীগ নেতার হাত কাটার মামলার রায়ে একজনকে যাবজ্জীবন ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানার নির্দেশ দিয়েছেন চট্টগ্রামের ২য় অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক ফেরদৌস আরা। তিনি গতকাল ১২ ফেব্রুয়ারি এ রায় দেন। সাজা পাওয়া ব্যক্তি হলো হাশিমপুর ইউনিয়নের ছৈয়দাবাদ এলাকার জাকের হোসেনের পুত্র মোহাম্মদ খোকন (৩০)।
ঘটনার বিবরণে জানা যায়, ২০১০ সালের ৭ ডিসেম্বর দুপুর ২-৩০ মিনিটের সময় চন্দনাইশ উপজেলা ছাত্রলীগের তৎকালীন সভাপতি সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী গাছবাড়িয়া খানহাটের এক হোটেলে ভাত খাচ্ছিলেন। এসময় একদল দুর্বৃত্ত তার উপর হামলা চালায় ধারালো দা দিয়ে। এতে সিরাজের ডান হাতের একটি অংশ কব্জি ঁ ৭ম পৃষ্ঠার . কলাম
ঁ শেষ পৃষ্ঠার পর
থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। এ ঘটনায় সিরাজ বাদি হয়ে ৪ জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলার রায়ে আদালত একজনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড এবং ৫০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দিয়েছেন। জরিমানার টাকা অনাদায়ে আরো এক বছর সশ্রম কারাদণ্ডেরও আদেশ দেন বিচারক। বিজ্ঞ বিচারক রায়ে মামলার অপর তিন আসামিকে বেকসুর খালাস দেন। মামলার বাদি ও বর্তমানে চন্দনাইশ পৌর যুবলীগের সভাপতি সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী এ রায়ে সন’ষ্ট হতে পারেননি জানিয়ে সাংবাদিকদের বলেন, এ রায়ের বিরুদ্ধে তিনি উচ্চ আদালতে আপিল করবেন।